পদ্মা সেতুতে কল্লা লাগার গুজব ছড়ানোয় গ্রেফতার ৫

ঢাকা, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯ | ২৯ আশ্বিন ১৪২৬

পদ্মা সেতুতে কল্লা লাগার গুজব ছড়ানোয় গ্রেফতার ৫

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৫:১৯ অপরাহ্ণ, জুলাই ১২, ২০১৯

পদ্মা সেতুতে কল্লা লাগার গুজব ছড়ানোয় গ্রেফতার ৫

পদ্মা সেতু নির্মাণে ‘মানুষের মাথা ও রক্ত লাগবে’- ফেসবুকে এমন গুজব ছড়ানোর অভিযোগে পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত পর্যন্ত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তাদের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে গ্রেফতার করেছে বলে জানিয়েছেন র‌্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের সিনিয়র সহকারী পরিচালক এএসপি মিজানুর রহমান ভূঁইয়া।

তিনি জানান, পদ্মা সেতু নির্মাণ নিয়ে ফেসবুকে গুজব ছড়ানোর দায়ে দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে বৃহস্পতিবার রাত পর্যন্ত পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

তারা হলেন- নড়াইলে শহিদুল ইসলাম সোহেল (৩০), চট্টগ্রামে মো. আরমান (২০), মৌলভীবাজারে ফারুক হোসেন (৫০), কুমিল্লায় হায়াতুন নবী (৩১) ও রাজবাড়ীতে নবম শ্রেণির ছাত্র পার্থ আল-হাসান (১৫)।

ডিজিটাল সিকিউরিটি আইনে সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা দায়েরের পর তাদের পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও জানান মিজানুর রহমান।

এদের মধ্যে শহিদুল ইসলাম সোহেলকে নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার শালনগর ইউনিয়নের মাকড়াইল গ্রাম থেকে রাত দেড়টার দিকে আটক করে র‍্যাব-৬।

পোল্ট্রি ব্যবসায়ী মো. আরমানকে বৃহস্পতিবার রাত দেড়টার দিকে চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলার তৈলারদ্বীপ গ্রাম থেকে আটক করে র‍্যাব-৭।

ফারুক হোসেনকে মৌলভীবাজার র‍্যাব-৮ আটক করেছে। হায়াতুন নবীকে কুমিল্লা থেকে আটক করে র‌্যাব-১১।

আর বৃহস্পতিবার দুপুরে পার্থ আল-হাসানকে পাংশা উপজেলার পাট্রা ইউনিয়নের বৈরাট গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে আটক করে র‍্যাব-৮।

সে গ্রামের আব্দুর সালামের ছেলে এবং মাজাইল বিএমডি উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্র।

আইএম

 

রাজধানী: আরও পড়ুন

আরও