মোবাইল কেড়ে নেয়ায় মায়ের সাথে অভিমানে মেয়ের আত্মহত্যা

ঢাকা, রবিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৯ | ৪ কার্তিক ১৪২৬

মোবাইল কেড়ে নেয়ায় মায়ের সাথে অভিমানে মেয়ের আত্মহত্যা

ঢামেক প্রতিবেদক ৯:৫৭ অপরাহ্ণ, জুন ১৭, ২০১৯

মোবাইল কেড়ে নেয়ায় মায়ের সাথে অভিমানে মেয়ের আত্মহত্যা

রাজধানীর শনির আখড়ার পলাশপুরে মালয়েশিয়া প্রবাসীর মেয়ে ইমা আক্তার (১৭) নামে এক ছাত্রী ফ্যানের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় পলাশপুর ২নংগলির ১০ তলা ভবনের ৯ তালা নিজ ফ্ল্যাটে দরজা বন্ধ করে গলায় ফাঁস দেয় সে।

পরে নিহতের মা সেলিনা ইসলাম অচেতন অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে রাত পৌনে ৮টায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতের গ্রামের বাড়ি মাদারীপুর জেলার কালকিনি থানার সস্তাল গ্রামের মালয়েশিয়া প্রবাসী নজরুল ইসলামের মেয়ে। দুই ভাই ও এক বোনের মধ্যে সে ছিল দ্বিতীয়। বর্ণমালা উচ্চ বিদ্যালয়ের মানবিক বিভাগ থেকে এবার এসএসসি পাস করেছে সে।

নিহতের মা সেলিনা আক্তার জানান, মেয়ে মোবাইলে বেশি বেশি কথা বলতো। আজ সকালে আমার মোবাইল দিয়ে সে কথা বলাতে আমি তার হাত থেকে মোবাইল নিয়ে আটকে রেখেছি। নেয়ার পরে সে সারাদিন ঠিকমতো খাওয়া-দাওয়া করেনি। মোবাইল কেড়ে নেয়ায় অভিমান করে সন্ধ্যায় দরজা বন্ধ করে গলায় ফাঁস দেয়। পরে দরজা ভেঙে তাকে মেডিকেলে নিলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ঢামেক ক্যাম্পের পুলিশ পরিদর্শক বাচ্চু মিয়া জানান, মৃতদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য ঢামেক মর্গে রাখা হয়েছে।

এইচআর

 

রাজধানী: আরও পড়ুন

আরও