তারকাদের জয়জয়কার, ব্যতিক্রম মুনমুন

ঢাকা, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | 2 0 1

তারকাদের জয়জয়কার, ব্যতিক্রম মুনমুন

পরিবর্তন ডেস্ক ৫:৫৭ অপরাহ্ণ, মে ২৩, ২০১৯

তারকাদের জয়জয়কার, ব্যতিক্রম মুনমুন

ভারতের লোকসভা নির্বাচনে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেতে চলেছে ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি)। সাত পর্বের নির্বাচনের ফলাফল বৃহস্পতিবার থেকে ঘোষণা করা হচ্ছে।

এতে অন্যান্য রাজ্যের মতো তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী মমতা ব্যানার্জির পশ্চিমবঙ্গেও বড় থাবা বসাতে চলেছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিজেপি।

তবে এই রাজ্যে দু’দল থেকেই যেসব তারকারা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন, তাদের প্রায় সবাই বিজয়ী হতে চলেছেন। শুধু ব্যতিক্রম মুনমুন সেন। তৃণমূল কংগ্রেসের এই প্রার্থী এবার বড় ব্যবধানে হারতে যাচ্ছেন। এর পেছনে তার সংসদীয় আসনে গণ্ডগোল নিয়ে একটি ঘটনাকে সামনে আনা হচ্ছে।

সংঘাতের ওই ঘটনায় মুনমুন সেন সাংবাদিকদের কাছে মন্তব্য করেছিলেন, ‘তিনিতো মারামারির বিষয়ে জানেনই না। কারণ, তার বিছানায় সকালের চা আসেই দেরিতে।’ এরপরই মুনমুন সেনকে নিয়ে নেটিজেনরা ব্যাপক সমালোচনায় মেতে ওঠেন।

এবারের লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গে মমতা ব্যানার্জি বরাবরের মতো একঝাঁক তারকাকে মনোনয়ন দেন। বিপরীতে বিজেপিও বেশক’জনকে প্রার্থী করেন। দু’দলেরই তারকারা হতাশ করেননি। সরাসরিই তারা বিজয়ী হতে চলেছেন।

তৃণমূণ কংগ্রেস থেকে এবার প্রার্থী হন অভিনেত্রী শতাব্দী রায়, মিমি চক্রবর্তী, নুসরাত জাহান, মুনমুন সেন ও অভিনেতা দেব। এদের মধ্যে শতাব্দী ও মুনমুন আগেও বিজয়ী হয়েছেন।

বিপরীতে বিজেপি জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী বাবুল সুপ্রিয় ও অভেনেত্রী লকেট চ্যাটার্জিকে প্রার্থী করেন।

যাদবপুর এবং বশিরহাটের মতো গুরুত্বপূর্ণ আসনে মিমি চক্রবর্তী ও নুসরাত জাহানকে প্রার্থী করলে মমতার এই সিদ্ধান্তে ব্যাপক সমালোচনা হয়। অনেকে হাস্যরসও করেন। নেটিজেনরা এমনও মন্তব্য করে বসেন, মমতার উচিত আইপএল খেলা, রাজনীতি করা নয়।

কিন্তু, ভোট গণনার পর দেখা যাচ্ছে, টলিউডের এসব তারকারা শুধু পর্দায় মানুষের মনোরঞ্জন নন, বাস্তবেও রাজনৈতিকভাবে মন জয় করে বসে আসেন।

বীরভূমে শতাব্দী রায় ৪৫ শতাংশ ভোট নিয়ে এগিয়ে আছেন। আগেও তিনি এখানে দু’বার নির্বাচিত হয়েছেন। এবারো পুনঃনির্বাচিত হতে যাচ্ছেন।

যাদবপুরে তৃণমূলের হয়ে লড়ছেন মিমি চক্রবর্তী। তার বিপরীতে বিজেপির শক্ত প্রার্থী অনুপম হাজরা। কিন্তু, এখানে মিমির পক্ষে এখন পর্যন্ত ৪৬ শতাংশ ভোট পড়েছে এবং সব ঠিক থাকলে বাংলা সিনেমার জনপ্রিয় এই অভিনেত্রী প্রথমবারের মতো এমপি হতে যাচ্ছেন।

তারকাদের মধ্যে সবচেয়ে চমক দেখিয়েছেন তৃণমূণ কংগ্রেস প্রার্থী নুসরাত জাহান। বশিরহাটে এখন পর্যন্ত ৫৯ শতাংশ ভোট নিয়ে তিনি এগিয়ে রয়েছেন।

টলিউডের জনপ্রিয় নায়ক দেব। তিনি এবার ঘাটালে তৃণমূল সংগ্রেস থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। এখন পর্যন্ত বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষের (৪১ শতাংশ) চেয়ে দেব ৪৭ শতাংশ ভোট পেয়ে এগিয়ে আছেন।

বিজেপি প্রার্থী অভিনেত্রী লকেট ব্যানার্জি হুগলিতে নিশ্চিত জয়ের পথে রয়েছেন। এখানে তার প্রতিদ্বন্দ্বী তৃণমূল কংগ্রেস থেকে দু’বার এমপি হওয়া রত্না দে নাগ।

আসানসোলে বিজেপি থেকে লড়াই করেন সংগীতশিল্পী বাবুল সুপ্রিয়। তার প্রতিদ্বন্দ্বী তৃণমূল কংগ্রেসের মুনমুন সেন। বাবুল ৫০ শতাংশ ভোট পেয়ে এগিয়ে রয়েছেন।

আইএম

 

বলিউড ও অন্যান্য: আরও পড়ুন

আরও