রাজাপুর ও নলছিটিতে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

ঢাকা, সোমবার, ২৫ মার্চ ২০১৯ | ১১ চৈত্র ১৪২৫

রাজাপুর ও নলছিটিতে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

ঝালকাঠি প্রতিনিধি ৭:২৫ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ০৮, ২০১৯

রাজাপুর ও নলছিটিতে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

ঝালকাঠি জেলায় এক রাতে দুই উপজেলার দুই বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। দুই বাড়ি থেকে ৩৮ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ টাকাসহ মালামাল লুটে নিয়েছে।

সোমবার দিনগত রাতে এ দুটি ঘটনায় ডাকাতদের হাতে আহত হয়েছেন দু’জন।

রাতে ৮ থেকে ১০ জন ডাকাতের একটি দল অস্ত্রের মুখে রাজাপুর উপজেলার উত্তর আদাখোলা গ্রামের সৌদি আরব প্রবাসী আব্দুর রাজ্জাক সিকদারের বাড়িতে দরজা ভেঙে প্রবেশ করে।

এছাড়া একই রাতে নলছিটি উপজেলার সরমহল গ্রামে অবসরপ্রাপ্ত পুলিশ কনস্টেবল নূরুল ইসলামের ঘরে পুলিশ পরিচয়ে ডাকাতি করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ডাকাতরা পরিবারের সবাইকে রশি দিয়ে বেঁধে মূল্যবান মালামাল ও টাকা নিয়ে যায়।

রাজাপুর উপজেলার রাজ্জাক জানান, রাত পৌনে ২টার দিকে ৮ থেকে ১০ জনের মুখোশ পরা ডাকাত দল দরজা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে অস্ত্রের মুখে সবাইকে জিম্মি করে। এতে বাধা দিলে রাজ্জাককে মারধর করে এবং ঘরের সবাইকে বেঁধে মালামাল লুট করে ডাকাতরা। স্থানীয়রা খবর পেয়ে ছুটে এলে ডাকাতরা পালিয়ে যায়।

তিনি জানান, ৩০ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ ১৭ হাজার টাকাসহ মূল্যবান মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে।

এদিকে নলছিটি উপজেলার সরমহল গ্রামে অবসরপ্রাপ্ত পুলিশ কনস্টেবল নূরুল ইসলামের ঘরে পুলিশ পরিচয়ে ডাকাতির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

গভীর রাতে ৭ থেকে ৮ জনের একটি দল পুলিশ পরিচয়ে নূরুল ইসলামকে ঘরের দরজা খুলতে বলে। দরজা খোলার পরে ডাকাতদল সবাইকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ টাকাসহ আট ভরি স্বর্ণালঙ্কার লুটে নেয়।

রাজাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. জাহিদ হোসেন বলেন, রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে পুলিশ। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। ঘটনায় জড়িতদের ধরতে অভিযান চলছে।

জেআইজে/এফবি/এইচআর