নবীজির সকাল-সন্ধ্যায় পঠিত দুআ

ঢাকা, রবিবার, ২০ জানুয়ারি ২০১৯ | ৭ মাঘ ১৪২৫

নবীজির সকাল-সন্ধ্যায় পঠিত দুআ

পরিবর্তন ডেস্ক ৭:৩৩ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৯, ২০১৮

নবীজির সকাল-সন্ধ্যায় পঠিত দুআ

নবী করীম (সা.) হতে সাহাবাগন সকাল ও সন্ধ্যায় পঠনীয় অনেক দুআ বর্ণনা করেছেন, যার প্রতিটিই বিশেষভাবে গুরুত্বপূর্ণ। তন্মধ্য হতে একটি দুআ, যা প্রিয় নবী (সা.) সকাল সন্ধ্যায় নিয়মিত করতেন। মুসলিম শরীফে বর্ণিত সহিহ হাদিসে এসেছে, নবীজি (সা.) যখন সন্ধ্যায় উপনীত হতেন তখন বলতেন:

أَمْسَيْنَا وَأَمْسَى الْمُلْكُ لِلَّهِ ، وَالْحَمْدُ لِلَّهِ لَا إِلَهَ إِلَّا اللهُ ، وَحْدَهُ لَا شَرِيكَ لَهُ ، لَهُ الْمُلْكُ وَلَهُ الْحَمْدُ وَهُوَ عَلَى كُلِّ شَيْءٍ قَدِيرٌ ، أَسْأَلُكَ خَيْرَ مَا فِي هَذِهِ اللَّيْلَةِ وَخَيْرَ مَا بَعْدَهَا ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا فِي هَذِهِ اللَّيْلَةِ وَشَرِّ مَا بَعْدَهَا ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ وَسُوءِ الْكِبَرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ النَّارِ وَعَذَابِ الْقَبْرِ

উচ্চারণ: আমসাইনা ওয়া আমসাল মুলকু লিল্লাহি, ওয়ালহাম্‌দু লিল্লাহি, লা ইলা-হা ইল্লাল্লা-হু ওয়াহ্‌দাহু লা শারীকা লাহু, লাহুল মুলকু ওয়া লাহুল হামদু, ওয়াহুয়া আলা কুল্লি শাই’ইন ক্বাদীর। আস্আলুকা খাইরা মা ফী হা-যিহিল লাইলাতি ওয়া খাইরা মা বা‘দাহা, ওয়া আ‘ঊযু বিকা মিন শাররি মা ফী হা-যিহিল লাইলাতি ওয়া শাররি মা বা‘দাহা, ওয়া আঊযু বিকা মিনাল কাসালি ওয়া সূইল-কিবারি। ওয়া আ‘ঊযু বিকা মিন আযাবিন্না-রি, ওয়া আযাবিল ক্বাবরি।

অর্থ: আমরা সন্ধ্যায় উপনীত হয়েছি এমতাবস্থায় যে, সমস্ত রাজত্ব ও সমুদয় প্রশংসা আল্লাহর জন্য। এক আল্লাহ ছাড়া সত্য কোন উপাস্য নেই। তাঁর কোনো শরীক নেই। রাজত্ব তাঁরই। প্রশংসা তাঁরই। আর তিনি সর্ববিষয়ে ক্ষমতাবান। এ রাতে ও এর পরের রাতগুলোতে যত কল্যাণ আছে আমি আপনার কাছে সে সব কল্যাণ পেতে প্রার্থনা করছি এবং এ রাতে ও এর পরের রাতগুলোতে যত অকল্যাণ আছে, আমি সেগুলো থেকে আপনার আশ্রয় চাচ্ছি। আমি আপনার কাছে অলসতা ও মন্দ বার্ধক্য থেকে আশ্রয় চাই। আমি আপনার কাছে জাহান্নামের ও কবরের শাস্তি থেকে আশ্রয় চাই।

এবং যখন তিনি সকালে উপনীত হতেন তখনও দুআটি পড়তেন। তবে শুরুতে “আমসাইনা ওয়া আমসাল মুলকু লিল্লাহি” এর স্থানে أَصْبَحْنَا وَأَصْبَحَ الْمُلْكُ لِلَّهِ “আসবাহনা ওয়া আসবাহাল মুলকু লিল্লাহ্‌” (অর্থ: আমরা সকালে উপনীত হয়েছি এমতাবস্থায় যে, সমস্ত রাজত্ব আল্লাহর জন্য) পড়তেন। -সহিহ মুসলিম : ৪৯০০

রাব্বুল আলামিন আমাদেরকেও নিয়মিত দুআটি করার তাওফিক দান করুন। আমীন।

এমএফ/

আরও পড়ুন...
বিপদ-মুসিবতে পড়ুন নবীজির দুআ!
কর্মস্থলেই যে ২৫টি আমল করে ফেলতে পারেন
জেনে নিন ফরয নামায পরবর্তী সহিহ দু’আ ও জিকির সমূহ
আয় বাড়াতে যে আমলগুলো করবেন
স্বচ্ছলতা লাভের ৬ কুরআনি পরামর্শ
মৃত বাবা-মায়ের জন্য যে আমলগুলো শিখিয়েছেন আল্লাহ ও তাঁর রাসুল
মহানবী (সা.) যে দুআটি অধিকাংশ সময় করতেন