টাঙ্গাইলে মায়ের পা ধুয়ে দিয়ে শিশুদের ভালোবাসা নিবেদন (ভিডিও)

ঢাকা, রবিবার, ১৯ আগস্ট ২০১৮ | ৪ ভাদ্র ১৪২৫

টাঙ্গাইলে মায়ের পা ধুয়ে দিয়ে শিশুদের ভালোবাসা নিবেদন (ভিডিও)

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি ৪:০৫ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮

ভালোবাসা দিবসে পা ধুয়ে দিয়ে মায়ের প্রতি শ্রদ্ধা জানালো শতাধিক শিশু। মায়ের প্রতি ভালোবাসা আর শ্রদ্ধা জানানোর ব্যাতিক্রমী এ আয়োজন করেছিল টাঙ্গাইলের হাতে খড়ি প্রি প্রাইমারি স্কুল। সন্তানের কাছে এমন শ্রদ্ধা ও ভালোবাসা পেয়ে মায়েরা হয়েছেন আবেগ আপ্লুত। আর শিশুরা হয়েছে আনন্দিত।

বুধবার সকালে টাঙ্গাইল শহরের এসপি পার্কে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টাঙ্গাইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মাহবুব আলম।

টাঙ্গাইল প্রেস ক্লাবের সভাপতি ও হাতেখড়ি প্রি-প্রাইমারি স্কুলের উপদেষ্টা জাফর আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সৈকত শাহিন, জেলা তথ্য কর্মকর্তা কাজী গোলাম আহাদ, প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী জাকেরুল মাওলা, চিত্র শিল্পী ফরিদ আহমেদ, আজকের দেশবাসী পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক একরামুল হক খান প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন হাতেখড়ি প্রি-প্রাইমারি স্কুলের চেয়ারম্যান নওশাদ রানা সানভী।   

অনুষ্ঠানে সারিবদ্ধভাবে বসা মায়েদের পা ধুয়ে দেয় শিশুরা। পরে প্রত্যেক মা ও শিশুকে ফুলের চারা উপহার দেন অতিথিবৃন্দ। 

টাঙ্গাইলের পুলিশ সুপার মাহবুর আলম বলেন, এ ধরনের উদ্যোগ শিশুদের মধ্যে নৈতিকতাবোধ জাগ্রত করতে ভূমিকা রাখবে। আজকের শিশুরাই আগামী দিনে দেশের কর্নধার হবে। মায়ের প্রতি এই ভালোবাসা তাদের অনেক দূর এগিয়ে নিয়ে যাবে। 

বাবা-মা’র প্রতি ভালোবাসার প্রকৃত মানে শিশুদের মাঝে ছড়িয়ে দিতেই ব্যতিক্রম এই উদ্যেগ বলে জানান উদ্যেক্তা হাতেখড়ি প্রি-প্রাইমারি স্কুলের চেয়ারম্যান নওশাদ রানা সানভী। তিনি পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, প্রতিটি মানুষের সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি তার বাবা-মা। আর এই বাবা-মাকে যাতে প্রতিটি মানুষ ভালোবাসে সেজন্য সমাজের সকল ক্ষেত্রেই বাবা-মাকে প্রাধান্য দিয়ে নানা কর্মসুচি করা প্রয়োজন। এতে করে সামাজিক অবক্ষয় কিছুটা হলেও কমবে।

সন্তান পা ধুয়ে দেয়ায় আবেগ আপ্লুত মা সুমাইয়া শিলা পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, সন্তানের কাছে এমন ভালোবাসা পেয়ে তিনি আনন্দিত। এ আনন্দ অন্যকোনো আনন্দের সাথেই তুলনা হয় না।

তাসলিমা আক্তার নামের অপর এক মা পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, এমন উদ্যোগ সন্তানদের মায়ের প্রতি আরো বেশি শ্রদ্ধাশীল করে তুলবে।

মায়ের পা ধুয়ে দিয়ে শিশু আলভী, রশনু, দিহান পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, ‘আমাদের মা আমাদের খুব ভালোবাসেন। তাই ভালোবাসা দিবসে মায়ের পা ধুয়ে দিতে পেরে খুব ভালো লাগছে। আমাদের আম্মুর পা ধুয়ে দেয়ার জন্য আমরা এখানে এসেছি।’

এএএন/এএফ