‘আমি পাবলিকের একটাকাও খাই না’

ঢাকা, রবিবার, ২৫ জুন ২০১৭ | ১১ আষাঢ় ১৪২৪

‘আমি পাবলিকের একটাকাও খাই না’

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি ১:৩৩ পূর্বাহ্ণ, জুন ২০, ২০১৭

print
‘আমি পাবলিকের একটাকাও খাই না’

সিলেট রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি নজরুল ইসলাম পুলিশ কর্মকর্তাদের ‍উদ্দেশে হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন,‘থানায় এসে কেউ যাতে কোনো প্রকারের হয়রানির শিকার না হন। সেবা নিতে এসে যদি কোনো বিষয়ে পুলিশ টাকা চায় তাহলে সরাসরি এসপির কাছে বলবেন। যদি এসপি পদক্ষেপ না নেন তাহলে আমাকে জানাবেন আমি ব্যবস্থা নিব। আমি নিজে পাবলিকের একটাকা খাই না। আমার অধীনস্থ পুলিশের কোনো কর্মকর্তা পাবলিকের কাছ থেকে একটাকাও খেতে পারবে না।

পাবলিকের টাকায় আমাদের বেতন হয় উল্লেখ করে ডিআইজি বলেন, পাবলিকতো আমাদের এমনিতেই খাওয়াচ্ছে। নতুন করে পাবলিককে হয়রানী করে কেন আমরা টাকা খাব। পুলিশের কোন সদস্যের বিরুদ্ধে মানুষকে হয়রানির সুস্পষ্ট অভিযোগ পাওয়া গেলে তার বিরুদ্ধে অবশ্যই দ্রুত আইনি ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

সোমবার দুপুরে শ্রীমঙ্গলে থানা পুলিশের ওপেন ডে হাউস ডে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখতে গিয়ে তিনি এসব কথা বলেন। এতে সাংবাদিক, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি,ব্যবসায়ী, পরিবহন শ্রমিকসহ নানা শ্রেণী পেশার দুইশতাধিক ব্যক্তিবর্গ অংশ নেন।

অতিরিক্ত ডিআইজি মো. নজরুল ইসলাম আরো বলেন, পুলিশি দায়িত্বটা হচ্ছে পবিত্র দায়িত্ব। মানুষের সেবা করার জন্য সৃষ্টিকর্তা আমাদেরকে এ দায়িত্বটি দিয়েছেন। আমরা যেন এ দায়িত্ব পালন করতে যেয়ে কাউকে কষ্ট না দেই সে দিকে খেয়াল রাখতে হবে এবং মানুষকে অপরাধ মুক্ত রাখার নিরন্তর চেষ্টা করে যেতে হবে।

সিনিয়র অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শ্রীমঙ্গল সার্কেল) খন্দকার আশফাকুজ্জামানের সভাপতিত্বে ও এসআই অনিক বড়ুয়ার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহ জালাল, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রসাশন) মো. আনোয়ারুল হক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মোবাশেরুল ইসলাম, ওসি কেএম নজরুল, শ্রীমঙ্গল ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি শেখ লুৎফুর রহমান, সাংবাদিক মো. মামুন আহম্মেদ, সুশীল শীল, পরিবহন শ্রমিক নেতা ময়না মিয়া, শাহজাহান মিয়া।

এমআইএ/এএস

 

print
 

আলোচিত সংবাদ