পুঁজিবাজারে বিক্রয় চাপ তবুও বেড়েছে সূচক

ঢাকা, রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৭ | ৩ পৌষ ১৪২৪

পুঁজিবাজারে বিক্রয় চাপ তবুও বেড়েছে সূচক

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৪:৫২ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৩, ২০১৭

print
পুঁজিবাজারে বিক্রয় চাপ তবুও বেড়েছে সূচক

তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলোর শেয়ারের ব্যাপক বিক্রয় চাপ অব্যাহত থাকলেও বুধবার দেশের প্রধান পুঁজিবাজারের সার্বিক মূল্য সূচক বেড়েছে। এসময় ডিএসইর সার্বিক লেনদেন বিগত সাড়ে ৭ মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ অবস্থানে উঠেছে।

.

এদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সাধারণ মূল্য সূচক আগের কার্যদিবসের তুলনায় ৮৩.১৪ শতাংশ বেড়েছে। এসময় সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৭৭ কোটি ৮৬ লাখ টাকা।

ডিএসই ও সিএসই’র বাজার পর্যালোচনায় এ তথ্য জানা গেছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, বুধবার ডিএসইত লেনদেন হওয়া ৩৩১ টি কোম্পানি ও ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১২৫ টির, কমেছে ১৭৪ টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৩২ টির। এসময় ডিএসইতে ৪৪ কোটি ৬৮ লাখ ২৪ হাজার ৭১১ টি শেয়ার লেনদেন হয়। যার বাজার দর ১ হাজার ৪২৭ কোটি ৩৬ লাখ টাকা।

এদিকে চলতি বছরের ২৫ জানুয়ারি ডিএসইতে লেনদেন হয়েছিলো ১ হাজার ৫২৪ কোটি ৯৩ লাখ টাকা। এর পর থেকে লেনদেনে মন্থরতা ছিল। কিন্তু বুধবার লেনদেন ১৪ শত কোটি টাকা অতিক্রম করেছে।

এদিন ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৩৫.১৭ পয়েন্ট বেড়ে দাড়িয়েছে ৬১৮৪.৫৭ পয়েন্টে স্থিতি পায়। এসময় শরীয়াহ্ ভিত্তিক কোম্পানিগুলোর মূল্য সূচক ডিএসইএস বেড়েছে ৬.৬৪ পয়েন্ট ও ডিএস-৩০ সূচক বেড়েছে ১১.৪১ পয়েন্ট।

বুধবার দিনশেষে ডিএসইতে টার্নওভার তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে লংকাবাংলা ফাইন্যান্স। এসময় কোম্পানিটির ৬৮ কোটি ৮৯ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। টার্নওভারে দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা আল-আরাফাহ্ ব্যাংকের ৪১ কোটি ৪৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ৩৮ কোটি ৯ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনের মধ্যে দিয়ে টার্নওভার তালিকায় তৃতীয় অবস্থানে ছিল সিটি ব্যাংক।

টার্নওভার তালিকায় থাকা অন্যান্য কোম্পানিগুলো হলো— ফার্স্ট সিকিউরিটি ব্যাংক, প্রাইম ব্যাংক, মার্কেন্টাইল ব্যাংক, স্কয়ার ফার্মা, গ্রামীণ ফোন, ন্যাশনাল ব্যাংক ও আইএফআইসি ব্যাংক।

এদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১৫১৩ পয়েন্ট বেড়ে দাড়িয়েছে ১৯১৯৫ পয়েন্টে। এসময় সিএসইতে ৭৭ কোটি ৮৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যা আগের কার্যদিবস থেকে ১৯ কোটি ১৫ লাখ টাকা বেশি।

এদিকে বুধবার সিএসইতে লেনদেন হওয়া ২৬৫ টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের শেয়ার ও ইউনিটের দর বেড়েছে ১০৯ টির, কমেছে ১৩৪ টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২২ টির।

জেডএস/এসবি

print
 

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad