ডিএসইর ৭৭ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের দরপতন

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১৫ ফাল্গুন ১৪২৬

ডিএসইর ৭৭ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের দরপতন

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৬:১২ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৭, ২০২০

ডিএসইর ৭৭ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের দরপতন

আস্থা সংকটে পতনের মধ্যে দিয়ে আরো একটি সপ্তাহ অতিক্রম করেছে দেশের পুঁজিবাজার। সদ্য সমাপ্ত সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ৭৭ শতাংশ কোম্পানি ও ফান্ডের দরপতন হয়েছে।

ডিএসই’র সপ্তাহিক বাজার পর্যালোচনায় এ তথ্য জানা গেছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, সমাপ্ত সপ্তাহে ডিএসইতে ১ হাজার ৩২০ কোটি ৭৩ লাখ ৭ হাজার ৯২১ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর আগের সপ্তাহে ডিএসইতে ১ হাজার ৫৭৭ কোটি ১২ লাখ ৯৬ হাজার ৮৪ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছিল। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসই’র লেনদেন কমেছে  ১৬.২৬ শতাংশ।

গত সপ্তাহে ডিএসইতে দৈনিক গড় লেনদেন হয়েছে ২৬৪ কোটি ১৪ লাখ টাকা। এর আগের সপ্তাহে ডিএসইতে দৈনিক গড় লেনদেন হয়েছে ৩১৫ কোটি ৪২ লাখ টাকা। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে গড় লেনদেন কমেছে ১৬.২৬ শতাংশ।

সদ্য সমাপ্ত সপ্তাহে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩৬০টি কোম্পানি ও ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ৬০টির, দর কমেছে ২৭৭টির ও দর অপরিবর্তিত ছিল ২১টি প্রতিষ্ঠানের। এর আগের সপ্তাহে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া কোম্পানি ও ফান্ডগুলোর ৩৪টির, দর কমেছে ৩১০টির ও দর অপরিবর্তিত ছিল ১৩টি প্রতিষ্ঠানের।

সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসই’র সার্বিক মূল্যসূচক কমেছে ৪৭.৫৬ পয়েন্ট। সপ্তাহের শুরুতে ডিএসই’র সার্বিক মূল্যসূচক ছিল ৪১৯৭ পয়েন্ট। সপ্তাহের ব্যবধানে তা ৪১৪৯ পয়েন্টে স্থিতি পেয়েছে। এসময় শরীয়াহ্ ভিত্তিক কোম্পানিগুলোর মূল্যসূচক ডিএসইএস কমেছে ৫.৬২ পয়েন্ট।

আলোচ্য সময়ে ডিএসইর মোট লেনদেনে ‘এ’ ক্যাটাগরির শেয়ারের দখলে ছিল ৯৮ দশমিক ৬৪ শতাংশ। ‘এ’ ক্যাটাগরিতে শেয়ারের লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৩০২ কোটি ৭২ লাখ ৩০ হাজার ৭৪৮ টাকার। আগের সপ্তাহে লেনদেনের পরিমান ছিল ১ হাজার ১৭২ কোটি ৫৭ লাখ ২২ হাজার ৮৪ টাকার।

লেনদেনে গেলো সপ্তাহে ‘বি’ ক্যাটাগরির শেয়ারের অংশগ্রহন ছিল দশমিক ৩১ শতাংশ। এসব শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৪ কোটি ১৩ লাখ ৪ হাজার ১৫৯ টাকা। আগের সপ্তাহে লেনদেনের পরিমাণ ছিল ২০৩ কোটি ২২ লাখ ২১ হাজার টাকা।

জেডএস/এইচআর

 

অর্থনীতি : আরও পড়ুন

আরও