ফেরদৌসী প্রিয়ভাষিণীর জন্য ‘কঞ্জুস’

ঢাকা, রবিবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | ৫ ফাল্গুন ১৪২৪

ফেরদৌসী প্রিয়ভাষিণীর জন্য ‘কঞ্জুস’

পরিবর্তন প্রতিবেদক ১১:২০ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ০৮, ২০১৮

print
ফেরদৌসী প্রিয়ভাষিণীর জন্য ‘কঞ্জুস’

অনেক দিন ধরে জটিল রোগে আক্রান্ত মুক্তিযোদ্ধা ও ভাস্কর ফেরদৌসী প্রিয়ভাষিণী। তার চিকিৎসা সহায়তায় লোক নাট্যদল (বনানী) আয়োজন করেছে জনপ্রিয় নাটক ‘কঞ্জুস’-এর বিশেষ মঞ্চায়ন।

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় নাট্যশালার মূল হলে শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় প্রদর্শিত হবে নাটকটি।

লোক নাট্যদলের পক্ষ থেকে জানানো হয়— ভাস্কর ফেরদৌসী প্রিয়ভাষিণী একজন বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা। বিভিন্ন সামাজিক আন্দোলন ওগণমানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায়ও তিনি গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে চলেছেন। তার চিকিৎসায় সহায়তা করার জন্য দেশের বিশিষ্টজনদের উদ্যোগের সঙ্গে সংহতি প্রকাশ করে এই বিশেষ প্রদর্শনীর আয়োজন।

ফরাসি নাট্যকার মলিয়েরের কমেডি ‘দ্য মাইজার’ অবলম্বনে ‘কঞ্জুস’-এর রূপান্তর করেছেন তারিক আনাম খান। নির্দেশনায় আছেন কামরুন নূর চৌধুরী।

নাটকের কেন্দ্রীয় চরিত্র কঞ্জুস বা হাড়কিপ্টে হায়দার আলী খানের বয়স ষাট পেরিয়ে সত্তরের ঘরে। তার এক ছেলে এক মেয়ে। ছেলে কাযিম আলী খান ও মেয়ে লাইলি বেগম। কোনো এককালে সমুদ্র ভ্রমণে গিয়ে তার মেয়ে লাইলির সঙ্গে পরিচয় হয় বদিউজ্জামানের। প্রেমের দাম দিতে গিয়ে বদি মিয়া হায়দার আলী খানের খাস চাকর হয়ে যায়।

এদিকে, হায়দার আলী খানের ছেলে কাযিম আলী খান প্রেমে পড়ে পাশের বাড়ির মর্জিনা বেগমের। কাযিমের সঙ্গে মর্জিনার প্রেম যখন তুঙ্গে তখন হায়দার আলীর চোখ পড়ে মর্জিনার ওপর। গোলাপজান ঘটকের মাধ্যমে লাইলির সঙ্গে হায়দার আলীর বিয়ের কথাবার্তা এগুতে থাকে। কাযিম তার আব্বা হুজুরের এহেন আচরণে তিক্ত-বিরক্ত হয়। এরপর নানা ঘটনার ভেতর দিয়ে এগিয়ে যায় নাটকটির গল্প।

ডব্লিউএস

 
.

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad