ঠাকুরগাঁওয়ে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আরো একজন নিহত

ঢাকা, শনিবার, ২৩ জুন ২০১৮ | ৮ আষাঢ় ১৪২৫

ঠাকুরগাঁওয়ে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আরো একজন নিহত

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি ৭:৫৮ পূর্বাহ্ণ, মে ২৭, ২০১৮

print
ঠাকুরগাঁওয়ে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আরো একজন নিহত

ঠাকুরগাঁওয়ে রফিকুল ইসলাম তালেবান (৫১) নামে আরো একজন কথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন। শনিবার দিবাগত রাত ২টায় জেলার রাণীশংকৈল উপজেলায় দুর্লভপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় পুলিশ একটি দেশীয় আগ্নেয়াস্ত্র ও ১শ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার করে।

নিহত রফিকুল ইসলাম ওরফে তালেবান রানীশংকৈল উপজেলার ভরনিয়া (শিয়ালডাম্গী) গ্রামের হুমাউন কবিরের ছেলে।

ঠাকুরগাঁও পুলিশ সুপার ফারহাত আহমেদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশের ভাষ্য, ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীংশকৈল উপজেলায় পুলিশের মাদকবিরোধী বিশেষ অভিযানে মহারাজাগামী রাস্তা দিয়ে দুর্লভপুর এলাকায় গেলে রফিকুল ইসলাম ওরফে তালেবানসহ ১০/১২ জন মাদক ব্যবসায়ী পুলিশের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এ সময় পুলিশও আত্মরক্ষার জন্য গুলি ছোঁড়ে।

এভাবে ১০/১৫ মিনিট ধরে চলা বন্দুকযুদ্ধ শেষে চোরাকারবারিরা পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় ধানক্ষেত থেকে রফিকুল ইসলাম তালেবানকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। কর্তব্যরত চিকিৎসক রফিকুলকে মৃত ঘোষণা করেন।

রাণীশংকৈল থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুল মান্নান জানান, মাদক ব্যবসায়ী রফিকুল ইসলামকে উদ্ধারকালে একটি দেশীয় পাইপগান, কিছু ধারালো অস্ত্র ও ১’শ বোতল ফেন্সিডিল জব্দ করা হয়েছে।

রফিকুল ইসলামের নামে বালিয়াডাঙ্গী ও রানীশংকৈল থানায় মাদকদ্রব্য আইনে ৮টি মামলা রয়েছে।
উল্লেখ্য, গত ২৩ মে বালিয়াডাঙ্গীর পারুয়া গ্রামের ভেলসা মোহাম্মদের ছেলে আপতাফুল(৩৮) ও গত ২৬ মে ঠাকুরগাঁও সদরের ছিট ছিলারং গ্রামের মৃত শফির উদ্দীনের ছেলে মোবারক হোসেন ওরফে কুট্রি (৪৪) বন্দুকযুদ্ধে নিহত হন।

বিআইবি/এএস/বিএইচ/

 
.




আলোচিত সংবাদ