বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে শ্রমিকদের ধর্মঘট

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২১ আগস্ট ২০১৮ | ৬ ভাদ্র ১৪২৫

বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে শ্রমিকদের ধর্মঘট

দিনাজপুর প্রতিনিধি ৯:৫০ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮

বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে শ্রমিকদের ধর্মঘট

উৎপাদন শ্রমিক হিসেবে নিয়োগের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের অবস্থান ধর্মঘট শুরু করেছেন দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের তৃতীয় ইউনিটের উন্নয়ন শ্রমিকরা।

আন্দোলনরত শ্রমিকদের তিন দিনের আল্টিমেটাম শেষ হওয়ায় মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান ফটকের সামনে অবস্থান ধর্মঘট শুরু করে প্রায় ৫০০ শ্রমিক।

তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান ফটকে অবস্থান নিয়ে আন্দোলনরত শ্রমিকরা অনির্দিষ্টকালের অবস্থান ধর্মঘট শুরু করেন। কিন্তু দুপুর ১২টায় পুলিশ তাদের সেখান থেকে তুলে দিলে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান ফটকের সামনে রেল লাইনের ধারে অবস্থান কর্মসূচি অব্যাহত রাখেন শ্রমিকরা।

শ্রমিকরা জানান, দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত অবস্থান ধর্মঘট কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে। তারপরও দাবি আদায় না হলে বৃহত্তর আন্দোলনের কর্মসূচি ঘোষণা করবেন তারা।

বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের শ্রমিক আন্দোলন পরিচালনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আবু সাঈদ জানান, বিদুৎ কেন্দ্রের উন্নয়ন কাজে নিয়োজিত ছিলেন তারা। বর্তমানে উন্নয়ন কাজ শেষ হয়ে উৎপাদন শুরু হয়েছে। কিন্তু বিদ্যুৎ কেন্দ্র কর্তৃপক্ষ উৎপাদন কাজে এ শ্রমিকদের নিয়োগ না দিয়ে বাইরে থেকে অন্য শ্রমিকদের নিয়োগ দিচ্ছে। ফলে কাজ হারিয়ে বেকার হয়ে পড়েছেন অনেক শ্রমিক।

তিনি বলেন, কর্তৃপক্ষের নিকট বারবার আবেদন জানানোর পরও কোনো সাড়া না পাওয়ায় আন্দোলনে নামতে বাধ্য হয়েছি।

এই বিষয়ে বড়পুকুরিয়া তাপ বিদুৎ কেন্দ্রের ৩য় ইউনিটের প্রকল্প পরিচালক চৌধুরী নুরুজ্জামান জানান, চীনা ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান হারবিন ইন্টারন্যাশনাল শ্রমিক নিয়োগ দেবে। কিন্তু ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান এখন পর্যন্ত শ্রমিক নিয়োগের চাহিদা না চাওয়ায় তাদের নিয়োগের ব্যবস্থা করা যাচ্ছে না।

বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান প্রকৌশলী আব্দুল হাকিম জানান, যারা আন্দোলন করছে তারা উন্নয়ন শ্রমিক। তাদের আন্দোলনে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উৎপাদন কাজে কোনো ব্যাঘাত সৃষ্টি হচ্ছে না।

তিনি জানান, নতুন তৃতীয় ইউনিট থেকে বর্তমানে ৩০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপন্ন হচ্ছে, যা জাতীয় গ্রিডে সরবরাহ করা হচ্ছে।

এদিকে তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৩য় ইউনিটের শ্রমিকরা আন্দোলন শুরু করায় বিদ্যুৎ কেন্দ্রের নিরাপত্তা বৃদ্ধি করা হয়েছে। প্রধান ফটকে বাড়ানো হয়েছে পুলিশ সদস্যের সংখ্যা।

এটি/এফবি/এএল