চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিশু ধর্ষণ ও হত্যাকারী ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ নিহত
Back to Top

ঢাকা, শুক্রবার, ১০ এপ্রিল ২০২০ | ২৬ চৈত্র ১৪২৬

চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিশু ধর্ষণ ও হত্যাকারী ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ নিহত

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি ৯:১৪ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২০

চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিশু ধর্ষণ ও হত্যাকারী ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ নিহত

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলায় রিমা খাতুন নামে ৭ বছরের শিশুকে ধর্ষণ ও হত্যাকারী পুলিশের সাথে ‘বন্ধুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে সদর উপজেলার শাহজাহানপুর ইউনিয়নের হরিসপুরে একটি আম বাগানে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানায়, নিহতের নাম তরিকুল ইসলাম (৩৫)। তিনি চরবাগডাঙ্গা ইউনিয়নের গড়াইপাড়ার নোমান আলীর ছেলে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এস এ এম ফজলে ই খুদা জানান, চরবাগডাঙ্গা এলাকায় শিশু ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের মূল সন্দেহভাজন ছিল তরিকুল ইসলাম। ঘটনার পর থেকে তিনি পলাতক ছিলেন।

তিনি জানান, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সময় সীমান্ত এলাকা থেকে তরিকুল ইসলামকে আটক করা হয়। আটকের পর তিনি শিশু ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দোষ স্বীকার করেন। এবং তার সাথে আরো সহযোগী ছিল বলে জানান।

পুলিশের এই কর্মকর্তার দাবি এরপর তরিকুলকে নিয়ে তার ওই সহযোগীদের ধরতে শাহজাহানপুর ইউনিয়ন হরিসপুর গ্রামের নতুন পাড়া এলাকায় একটি আম বাগানে পৌঁছালে তার সহযোগীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে পুলিশও পাল্টা গুলি ছুড়ে। পরে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় তরিকুলকে পাওয়া যায়। তাকে দ্রুত উদ্ধার করে দ্রুত হাসপাতালে নেয়া হয়। ঘটনাস্থল থেকে একটি পিস্তল ও ৫ রাউন্ড গুলিসহ একটি ম্যাগাজিন উদ্ধার করা হয়।

হাসপাতালে জরুরী বিভাগের চিকিৎসা কর্মকর্তা আবু বকর সিদ্দিক জানান, তরিকুলের বুকে দুটি গুলিবিদ্ধ হয়েছে।

উল্লেখ্য, নিখোঁজ হওয়ার একদিন পর সদর উপজেলার চরবাগডাঙ্গা ইউনিয়নের মানিক হাজিরটোলা গ্রামের একটি বাঁশ ঝাড় থেকে ১৮ ফেব্রুয়ারি সকালে রহুল আমিনের মেয়ে রিমার লাশ উদ্ধার করেছিলে পুলিশ।

এসবি

 

সমগ্রবাংলা: আরও পড়ুন

আরও