নাটোরে এনজিও ম্যানেজারকে ঋণগ্রহীতার ছুরিকাঘাত
Back to Top

ঢাকা, বুধবার, ১ এপ্রিল ২০২০ | ১৮ চৈত্র ১৪২৬

নাটোরে এনজিও ম্যানেজারকে ঋণগ্রহীতার ছুরিকাঘাত

নাটোর প্রতিনিধি ৪:৫৫ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১২, ২০১৯

নাটোরে এনজিও ম্যানেজারকে ঋণগ্রহীতার ছুরিকাঘাত

নাটোরের সিংড়ায় ইদ্রিস আহমেদ নামের এক এনজিও ম্যানেজারকে ছুরিকাঘাত করেছে সেন্টু নামের এক ঋণগ্রহীতা।

বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার সিংড়া বাসস্ট্যান্ড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

পরে স্থানীয়রা আহত ইদ্রিসকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

আহত ইদ্রিস আলী যশোরের মনিরামপুর উপজেলার লক্ষণপুর গ্রামের আহমেদ আলীর ছেলে। তিনি আরআরএফ নামক একটি এনজিও’র সিংড়া শাখার ম্যানেজার হিসেবে কর্মরত।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী জানান, প্রায় দেড় বছর পূর্বে সিংড়া পৌর শহরের চকসিংড়া মহল্লার মৃত শুকুর আলীর ছেলে সেন্টু আরআরএফ এনজিও থেকে ৬০ হাজার টাকা ঋণ নেয়। কিন্তু ঋণ নেওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত কোন টাকা পরিশোধ করেনি সেন্টু।

এ বিষয়ে ইদ্রিস টাকা চাইলে বিভিন্ন বাহানায় তাকে ঘুরায় সেন্টু। ঘটনার দিন সকালে সিংড়া বাসস্ট্যান্ড এলাকায় দেখা হলে সেন্টুর কাছে টাকা চায় ম্যানেজার ইদ্রিস আহমেদ। এসময় সেন্টু টাকা দিতে অস্বীকৃতি জানায়।

পরে বিষয়টি নিয়ে দুজনের মধ্যে কথা কাটাকাটি শুরু হয়। এরই এক পর্যায়ে সেন্টু উত্তেজিত হয়ে তার কাছে থাকা ছুরি বের করে ম্যানেজারের পেটে আঘাত করে পালিয়ে যায়।

ঘটনাটি স্থানীয়রা দেখতে পেয়ে এগিয়ে এসে আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। বর্তমানে তিনি সেখানেই চিকৎসাধীন।

এ ঘটনায় ইদ্রিস আহমেদ বলেন, সেন্টু তাদের এনজিও থেকে ঋণ নেওয়ার পর তা পরিশোধের জন্য কিস্তি দেয় না। টাকা দিতে তাকে অনেকবার অনুরোধ করা হয়েছে। তারপরও সে টাকা দেয় না। বিভন্নভাবে বাহানা দেখিয়ে পালিয়ে বেড়ায়। আজ বাসস্ট্যান্ড এলাকায় তার সাথে দেখা হলে ঋণের টাকা চাওয়া হয়। এতে সে ক্ষিপ্ত হয়ে গালিগালাজ দিতে থাকে। এক পর্যায়ে সে আমার পেটে ছুরি দিয়ে আঘাত করে পালিয়ে যায়। ঘটনাটি প্রতিষ্ঠানের সকলকে জানানো হয়েছে। এ বিষয়ে থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। 

এ বিষয়ে সিংড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নুর-এ-আলম সিদ্দিকী জানান, ঘটনাটি তিনি মৌখিকভাবে শুনেছেন। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

বিএল/জেডএস

 

সমগ্রবাংলা: আরও পড়ুন

আরও