পুলিশ অফিসার খুনীকে ভুল করে সম্মাননা দিয়ে কাঁদলেন মেয়র!

ঢাকা, বুধবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৭ | ৩ কার্তিক ১৪২৪

পুলিশ অফিসার খুনীকে ভুল করে সম্মাননা দিয়ে কাঁদলেন মেয়র!

পরিবর্তন ডেস্ক ৭:৫৪ অপরাহ্ণ, মে ১৯, ২০১৭

print
পুলিশ অফিসার খুনীকে ভুল করে সম্মাননা দিয়ে কাঁদলেন মেয়র!

যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াহিও অঙ্গরাজ্যের সিনসিনাতি শহরের মেয়র জন ক্রেনলি সংবাদ সম্মেলনে এসে পুরোটা সময় কাঁদলেন। কারণ তার দপ্তর থেকে এমন একজন ব্যক্তিকে সম্মাননা দেওয়া হয়েছে যে একজন পুলিশ অফিসারকে খুন করা সহ কয়েকজনকে আহত করেছিলেন।

বৃহস্পতিবার রাতের সে সংবাদ সম্মেলনে সিনাসিনাতি মেয়র জন ক্রেনলি কাঁদতে কাঁদতে বলেন: ‘আমি সত্যিই খুব দুঃখিত যে আমার দপ্তর থেকে এমন একজন ব্যক্তির পক্ষে সম্মাননা গিয়েছে যিনি সনি কিমকে (পুলিশ অফিসার)  হত্যা করেছে।’ 

স্থানীয় পুলিশ ইউনিয়ন হলে কথা বলার সময় তার গাল বেয়ে চোখের পানি পড়ছিলো এবং গলা দিয়ে কথা আটকে যাচ্ছিলো। তার মুখ লাল হয়ে গিয়েছিল। তার ছোট্ট বিবৃতিটি পড়তে বেশ কয়েকবার থেমে গিয়েছিলেন।

সিএনএন এর সেই প্রতিবেদনে জানা যায় ২০১৫ এর জুন মাসে একাধিক গুলি করে সনি কিমকে হত্যা করেছিল ট্রেপিয়ার হামনস্ নামে ২১ বছরের এক তরুণ। সেদিনের ঘটনা নিয়ে জানা যায় হামনস্ নামে সেই তরুণ ৯১১ এ কল করে জানিয়েছিল সে মারাত্মক এক ঘটনা দেখছে। কেউ একজন তার অস্ত্র নিয়ে খেয়ালী আচরণ করছে। দৃশ্যপটে পুলিশ অফিসার কিম আসলে তাকে বেশ কয়েকবার গুলি করে হামনস্। পরবর্তীতে আরও দুজন পুলিশ অফিসার আসলে তাদেরকেও গুলি করা হয়। পুলিশের গুলিতে অবশ্য সেই খুনীও মারা যান।

গত সপ্তাহে রোনাল্ড হামনস্ নামে এক ব্যক্তি তার ছেলের জন্মদিনে মেয়রের দপ্তরে একটি বিশেষ অনুরোধ পেশ করে। নিহত সে সন্তানের পুরো নাম লেখা ছিল না সেখানে। সিনসিন্নাতিতে ১ জুন, ২০১৭ কে ‘ট্রে ডে’ ঘোষণা করার দাবি ছিল সেখানে। মেয়রের দপ্তরের কমিউনিকেশনস্ ডিরেক্টর সেই ঘোষণা অনুমোদনও করে দেন। তার মাধ্যমে আসলে পুলিশ অফিসারের খুনী ও অপর দুই পুলিশের উপর হামলাকারীকে সম্মানিত করা হয়েছিল।

মেয়র অফিস আসলে ঘোষণাটি ভালোভাবে খেয়াল করেনি যে তারা ট্রেপিয়ারকে সম্মাননা জানিয়েছেন যিনি সনি কিমকে খুন করেছিলেন।

মেয়রের অফিস যখন বিষয়টি টের পায় তখন তারা সেই ঘোষণাটি তুলে নেয়। মেয়র ক্রেনলি তাই স্বীকার করেন: ‘এটা অনেক বড় ভুল। এটা ইচ্ছাকৃতভাবে করা হয়নি।’ তারপর মেয়র সনি কিমের বিধবা স্ত্রী, সিনসিনাতি পুলিশ প্রধান এবং আহত দুই পুলিশ অফিসারের কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন।

মেয়র এতই দুঃখ প্রকাশ করেছেন যে তিনি দীর্ঘক্ষণ কথা বলতে পারছিলেন না। তিনি উপস্থিত সবার কাছে দুঃখ প্রকাশ করে চলে যান।

ভিডিও...

এসবিআই/

print
 

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad