খাবার সম্পর্কে ৮ অদ্ভূত ভীতি

ঢাকা, সোমবার, ২৯ মে ২০১৭ | ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪

খাবার সম্পর্কে ৮ অদ্ভূত ভীতি

পরিবর্তন ডেস্ক ৪:৫৭ অপরাহ্ণ, মে ১৯, ২০১৭

print
খাবার সম্পর্কে ৮ অদ্ভূত ভীতি

আমরা অনেকে খাবার বেছে বেছে খেতে পছন্দ করি। কিন্তু অনেক সময় খাবার নিয়ে বিতৃষ্ণা থাকা খুব বড় একটি সমস্যা। কিছু মানুষকে প্রতিদিন তার খাবারের প্রতি ভীতি নিয়ে কাটাতে হয়। যেসব খাবার খেতে তাদের প্রচুর ভয় তা হজম করতেও তাদের অসুবিধা হয়। আসলে কে খাদ্যভীতিতে আছেন আর কার খাবারের প্রতি অনীহা আছে সেটা কিভাবে জানা যায় তা আমরা জানি না। চলুন জেনে নিই কিভাবে বুঝবেন খাবার নিয়ে আপনার আসলে ভীতি কাজ করে নাকি অনীহা।

১. ল্যাকানোফোবিয়া- সবজীভীতি :

যদি সবজী দেখে আপনার মনে ভয় কাজ করে এবং তা গলা দিয়ে নামাতেই কষ্ট হয়ে যায় তবে হয়তো আপনার সবজীভীতি রয়েছে। এক্ষেত্রে কারণ হিসেবে ধরা হয় যে সবজীর ভেতরের কোনও পোকা বা বীজ পেটে চলে যেতে পারে এই ভয় কাজ করে আপনার মধ্যে।

২. থারমোফোবিয়া- গরমভীতি :

গরম গরম খাবার খেতে ভয় পান থারমোফোবিয়ায় আক্রান্ত মানুষ। গরম স্যুপ বা কফি হোক, মুখ পুড়ে যাওয়ার ভয়ে এ ফোবিয়ায় আক্রান্ত মানুষ গরম খাবার খেতে ভয় পায়। অন্যদিকে ফ্রিজোফোবিয়ায় আক্রান্ত মানুষ ঠান্ডা খাবার খেতে ভয় পায়।

৩. ব্রুমোট্যাকটিলোফোবিয়া- খাবার ছোঁয়ার ভীতি :

প্লেটের উপরে রাখা এক খাবার অন্য খাবারকে স্পর্শ করছে এটা দেখে বিরক্ত লাগে? তবে অবশ্যই বুঝতে হবে ব্রুমোট্যাকটিলোফোবিয়া রয়েছে। অবসেসিভ কমপালসিভ ডিজঅর্ডারের হালকা এক রূপ ধরা হয় এই ভীতিকে। এই ভীতির মানুষ ভিন্ন খাবারের স্বাদ আলাদা আলাদাভাবে নিতে চান এবং প্লেট পরিস্কার রাখতে পছন্দ করেন।

৪. অ্যাসিরোফোবিয়া- টক খাবারের ভয় :

অনেক মানুষ টক খেতে পারেন না। এতে তাদের বমি বমি লাগে এবং অনেক সময় মাথা ঝিম ঝিমও করে। টক খাবার খাওয়ার এই ভয়কেই অ্যাসিরোফোবিয়া বলে।

৫. মাইসোফোবিয়া- মাশরুম খাওয়ার ভয় :

সবাই মাংসের মতো খেতে মাশরুম তাদের পাস্তার সঙ্গে খেতে পছন্দ করেন না। তাদের কাছে মনে হয় বিষাক্ত এই ছত্রাক খেলে ক্ষতি হবে এবং অনেক সময় নিঃশ্বাস নিতে সমস্যা হয় তাদের।

৬. অ্যারাকিবিউটিরোফোবিয়া- পিনাট বাটার ভীতি :

বিশ্বাস করুন আর নাই করুন, কিছু মানুষ শুধু মাত্র মুখের তালুতে লেগে যাবে এই ভয়ে পিনাট বাটার খেতে পারে না।

৭. কনসেকটেলোফোবিয়া- চপস্টিকভীতি :

আমরা অনেকেই জানি না কিভাবে চপস্টিক দিয়ে খেতে হয়। কিন্তু অনেক মানুষই চপস্টিক দিয়ে খেতে হবে বলে চীনা ও জাপানি রেস্তোরাতেই যান না। মূলতঃ বিব্রতকর পরিস্থিতি সৃষ্টি হবে এই ভয়তে তারা চপস্টিকে খেতে চান না।

৮. টুরোফোবিয়া- পনীর খাওয়ার ভয় :

পনীর খেতে ভালোবাসেন না এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া মুশকিল। মুলতঃ টুরোফোবিয়ায় আক্রান্তরা পনীর পচে যাওয়া খাবার বা সেকেলে বা হয়তো পোকা রয়েছে এটা মনে করে খেতে চায় না।

খাবার নিয়ে এসব ভীতির বেশিরভাগই কোনও গুরুতর রোগ নয়। অনেকের মধ্যেই এই রোগ দেখা যায়। আপনার মধ্যেও কি আছে?

আরবি

print
 

আলোচিত সংবাদ