সুলতানা কামালের বক্তব্য জ্যোতির্বিদ্যা নির্ভর: হাছান

ঢাকা, শনিবার, ২৪ জুন ২০১৭ | ১০ আষাঢ় ১৪২৪

সুলতানা কামালের বক্তব্য জ্যোতির্বিদ্যা নির্ভর: হাছান

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৬:২৮ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২০, ২০১৭

print
সুলতানা কামালের বক্তব্য জ্যোতির্বিদ্যা নির্ভর: হাছান

রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র নিয়ে সুলতানা কামালের বক্তব্যের তীব্র সমালোচনা করেছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। গতকাল বুধবার সুন্দরবন রক্ষা জাতীয় কমিটির ব্যানারে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞ মতামত তুলে ধরতে এক সংবাদ সম্মেলন করা হয়।

ওই সংবাদ সম্মেলনের পরদিন ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলটির প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক হাছান মাহমুদ দলের পক্ষে প্রতিক্রিয়া জানান।

রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্রে সুন্দরবনের ক্ষতি হওয়ার অভিযোগের বিষয়ে হাছান মাহমুদ বলেন, সুলতানা কামালের বক্তব্য অনুমান নির্ভর, ভিত্তিহীন ও জ্যোতির্বিদ্যা নির্ভর। এটি বিজ্ঞানসম্মত না। জনগণকে বিভ্রান্ত করতে এ ধরণের জ্যোতির্বিদ্যা নির্ভর বক্তব্য না দিতে তাদের প্রতি আহ্বান জানাবো।

সুন্দরবন রক্ষা কমিটির সংবাদ সম্মেলনের বিষয়ে তিনি বলেন, ওই আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞদের কয়েকজনকে তো আমরা চিনি। তারা ভাড়াটে বিশেষজ্ঞ।

এ সময় তিনি রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র সরানোর দাবিকে অবান্তর বলে মন্তব্য করেন।

এক্সিম ব্যাংকের অর্থায়ন নিয়ে সুলতানা কামালের প্রশ্নের বিষয়ে তিনি বলেন, পৃথিবীর সব ব্যাংকের টাকাই জনগণের টাকা। সেই টাকা ভারত সরকারের অনুমতি নিয়ে, একটি আন্তর্জাতিক চুক্তির মাধ্যমে এক্সিম ব্যাংক এখানে বিনিয়োগ করছে। কিন্তু সুলতানা কামাল জনগণকে বিভ্রান্ত করতে মিথ্যাচার করছেন।

রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ করলে আওয়ামী লীগ রাজনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে কিনা জানতে চাইলে হাছান মাহমুদ বলেন, পদ্মা সেতুর সময়ও অনেক কিছু হয়েছে। কিন্তু সরকারের বক্তব্যই সত্য বলে প্রমাণিত হয়েছে। এবারও সেই একই শক্তি জনগণকে বিভ্রান্ত করছে। এবারও সরকারের বক্তব্যই সত্য বলে প্রমাণিত হবে।

সুলতানা কামালের সমালোচনা করে তিনি বলেন, এ প্রকল্প সর্বাধুনিক পদ্ধতিতেই করা হচ্ছে।

বড় পুকুরিয়া কয়লা খনির উদাহরণ টেনে সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, এ প্রকল্পে পরিবেশের ক্ষতি হবে না। বরং ফসলের উৎপাদন বাড়তে পারে।

পশুর নদী শুকিয়ে যাওয়ার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এটা ভিত্তিহীন কথা। পশুর নদী শুকালে দেশের সব নদী শুকিয়ে যাবে।

এলআর/এমডি

print
 

আলোচিত সংবাদ