বউ পেটানোর অভিযোগে পদত্যাগ করছেন ট্রাম্পের আরেক সহযোগী

ঢাকা, রবিবার, ২০ মে ২০১৮ | ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫

বউ পেটানোর অভিযোগে পদত্যাগ করছেন ট্রাম্পের আরেক সহযোগী

পরিবর্তন ডেস্ক ১০:৪২ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১৮

print
বউ পেটানোর অভিযোগে পদত্যাগ করছেন ট্রাম্পের আরেক সহযোগী

সাবেক দুই স্ত্রীর ওপর নির্যাতনের অভিযোগে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের এক শীর্ষ কর্মকর্তার পদত্যাগের একদিন পরই আরেক সহযোগী পদত্যাগ করতে যাচ্ছেন বলে খবর বেরিয়েছে। ডেভিড সরেনসেন নামের ওই কর্মকর্তা ট্রাম্পের স্পিচ রাইটার (বক্তৃতা লেখক)। বিবিসি এক প্রতিবেদনে বলেছে, সাবেক স্ত্রীর অভিযোগ, তিনি তার ওপর সহিংস নির্যাতন চালিয়েছেন। কিন্তু ডেভিড তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। 

এর একদিন আগে সাবেক দুই স্ত্রীর অভিযোগের কারণে পদত্যাগ করেন রব পর্টার নামের আরেক কর্মকর্তা। তিনিও তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।



রব পর্টার হোয়াইট হাউজে ট্রাম্প টিমের একজন সিনিয়র সদস্য। এর আগে মিডিয়ায় স্ত্রীদের নির্যাতনের খবর প্রকাশ করে লন্ডনের ডেইলি মেইল। কিন্তু এমন অভিযোগ অস্বীকার করেন পর্টার। তার সাবেক দুই স্ত্রী কোলবি হোল্ডারনেস এবং জেনিফার উইলোবি অভিযোগ করেছেন, তিনি তাদের ওপর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন চালিয়েছেন।

রব পর্টারের প্রথম স্ত্রী কোলবি হোল্ডারনেস বলেছেন, ২০০০ সালের প্রথম দশকে ফ্লোরেন্স সফরকালে তাকে ঘুষি মেরেছিলেন হোল্ডারনেস।


দ্বিতীয় স্ত্রী জেনিফার উইলোবি বলেছেন, হানিমুনের সময় তাদের মধ্যে উত্তেজনাকর অবস্থার সৃষ্টি হয়। অভিযোগ করে হোল্ডারনেস একটি ছবিও প্রকাশ করেছেন। তাতে দেখা গেছে, ফ্লোরেন্সে একটি হোটেলরুমে অবস্থানকালীন তাকে ঘুষি মারা হয়েছে। এতে তার চোখের কাছে থেঁতলে যাওয়ার চিহ্ন আছে।

উল্লেখ্য, প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের যোগাযোগ বিষয়ক পরিচালক হোপ হিকসের সঙ্গে চুটিয়ে প্রেম করছেন রব পর্টার- এমন অভিযোগ আছে। তবে এমন অভিযোগকে মিথ্যা বলে দাবি করেছেন পর্টার।

তিনি বলেছেন, হোল্ডারনেস যে ছবি দেখিয়েছেন তা প্রায় ১৫ বছর আগের। তারপরও তিনি অভিযোগ আসার কারণে স্বচ্ছতার জন্য হোয়াইট হাউজ থেকে সরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

আরপি

 
.




আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad