‘ব্যাংক খাতে হরিলুট-অর্থপাচারের ভয়াবহ তথ্য আছে’

ঢাকা, সোমবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | ৭ ফাল্গুন ১৪২৪

‘ব্যাংক খাতে হরিলুট-অর্থপাচারের ভয়াবহ তথ্য আছে’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ১০:০৪ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮

print
‘ব্যাংক খাতে হরিলুট-অর্থপাচারের ভয়াবহ তথ্য আছে’

জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সংসদ সদস্য ফখরুল ইমাম বলেছেন, ব্যাংকিং খাত সবচাইতে বড় খাত। আর এই ব্যাংকিং খাতে চলছে নৈতিকতার সংকট। ব্যাংক খাতে হরিলুট-অর্থপাচারের ভয়াবহ তথ্য আছে।

তিনি বলেন, ব্যাংকিং খাতে না জেনে-শুনেই ব্যাংক ঋণ দেয়া হচ্ছে। রাজনৈতিক কারণে ব্যাংক ঋণ দিয়ে যাচ্ছে। ঋণ যারা পাচ্ছেন তারা পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে খেলাপি হয়ে যাচ্ছেন। ব্যাংক এখন পরিবারতন্ত্রে পরিণত হয়েছে।

বুধবার জাতীয় সংসদে রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনীত ধন্যবাদ প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে এসব কথা বলেন তিনি।

ব্যাংকিং খাতের অনিয়ম তুলে ধরে ফখরুল ইমাম বলেন, এলসির মাধ্যমে কোনো পণ্য না এনেই পুরো টাকাই বিদেশে রাখা হচ্ছে। ভুয়া শিপমেন্টের মাধ্যমে টাকা তুলে নেওয়া হচ্ছে। এতে সব পক্ষই জড়িত।

ফারর্মাস ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যানের নাম উল্লেখ না করে এই সংসদ সদস্য তার আলোচনায় বলেন, বিশেষ এক ব্যাংকের মালিক বিশেষ অঞ্চলের ৩ হাজার লোক নিয়োগ দিয়েছে। যে নিয়োগের ৯০ শতাংশই তার নিজ এলাকার। নিয়োগের ক্ষেত্রেই যদি স্বজনপ্রীতি থাকে, তাহলে সেই ব্যাংক কী করে ঋণ কেলেঙ্কারি ঠেকাবে?

তিনি বলেন, আগে একটা দুইটা প্রশ্ন মোবাইলে-ফেসবুকে পাওয়া যেত, এবার বাসভর্তি প্রশ্ন পাওয়া গেল! প্রশ্নফাঁসের পুরো বিষয়টি সরকারের নাগালের বাইরে। শিক্ষার পদে পদে ঘুষ বাণিজ্য। নানা নামে নানা কৌশলে বিভিন্ন অংকের টাকা লেনদেন হচ্ছে।

তিনি বলেন, শ্যামলী বাসে যেসব যাত্রী ছিল সবার কাছেই প্রশ্ন ছিল। এ পর্যন্ত ৭টি বিষয়ের সব প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে।

খালেদা জিয়ার কারাবাস সম্পর্কে ফখরুল ইমাম বলেন, নদীতে জোয়ার-ভাটা হয়। তবে জোয়ার-ভাটা এক সঙ্গে হয় না। রাজনীতির জোয়ার-ভাটার খেলায় কেউ এগিয়ে যাবে কেউ পিছিয়ে পড়বে এটাই নিয়ম।

এইচকে/এএল

 
.

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad