কালীগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্র হত্যার ঘটনায় মামলা দায়ের

ঢাকা, শুক্রবার, ২৪ জানুয়ারি ২০২০ | ১১ মাঘ ১৪২৬

কালীগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্র হত্যার ঘটনায় মামলা দায়ের

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ১১:২৪ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০৫, ২০১৯

কালীগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্র হত্যার ঘটনায় মামলা দায়ের

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে ওয়াজ মাহফিল শুনতে গিয়ে নিখোঁজ হওয়া মাদ্রাসা ছাত্র আলামিন হোসেন (১৩) নামে এক শিশুকে হত্যার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মাদ্রাসা ছাত্র আলামিনকে হত্যার ঘটনায় কালীগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। যার নং- ৩। বৃহস্পতিবার রাতে আলামিনের পিতা আব্দুর রাজ্জাক বাদী হয়ে অজ্ঞাত করে একটি মামলা দায়ের করেন।

সুত্র জানায়, মাদ্রাসা ছাত্র আলামিনকে বুকের তিন স্থানে ছুরিকাঘাত ও গলাকাটা হয়। তাকে অন্য কোনো স্থানে হত্যা করে আড়াপাড়া এলাকার একটি ৪তলা ভবনের পিছনে ফেলে রেখে যাওয়া হয়েছে। হত্যাটি পূর্ব পরিকল্পিত বলে ধারণা করা হচ্ছে।

কালীগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) মতলেবুর রহমান জানান, এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে শিশুটির বাবা আব্দুর রাজ্জাক বাদি হয়ে অজ্ঞাত আসামি করে একটি মামলা দায়ের হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আড়পাড়া এলাকার ডাবলু হোসেনের ছেলে হৃদয় ও মিল্টন হোসেনের ছেলে রাজিবকে থানায় আনা হয়েছে।  

মাদ্রাসা ছাত্র আলামিন হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় ফুঁসে উঠেছে কালীগঞ্জের সাধারণ জনগণ। হত্যাকারীদের বিচারের দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৪টার সময় কালীগঞ্জ মেইন বাসস্ট্যান্ডে এই মানববন্ধন করে।

মানববন্ধনে কালীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আশরাফুল আলম আশরাফ, জেলা পরিষদের সদস্য জাহাঙ্গীর হোসেন সোহেল, জাতীয় ইমাম সমিতির সভাপতি মুফতি ফারুক নোমানী সহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার শত শত মানুষ অংশগ্রহন করে। এসময় নিহত আল আমিনের বাবা আব্দুর রাজ্জাক সহ বক্তারা দ্রুত খুনিদের সনাক্ত করে বিচারের আওতায় আনার দাবি জানান।

উল্লেখ্য, গত ৩০ নভেম্বর ওয়াজ মাহফিল শুনতে গিয়ে নিখোঁজ হওয়া মাদ্রাসা ছাত্র নিখোঁজ হয় মাদ্রাসা ছাত্র আলামিন হোসেন (১৩)। এরপর বুধবার দুপুর ২ টার দিকে আড়পাড়া এলাকার ৪তলা ভবনের পিছন থেকে  শিশুটির অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

এআরই

 

খুলনা: আরও পড়ুন

আরও