বাণিজ্য মেলার পণ্যে ছাড়ের কত বাহার!

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | ১০ ফাল্গুন ১৪২৪

বাণিজ্য মেলার পণ্যে ছাড়ের কত বাহার!

নিজস্ব প্রতিবেদক ৯:৪৬ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৭, ২০১৮

print
বাণিজ্য মেলার পণ্যে ছাড়ের কত বাহার!

মেলায় পণ্য কেনা মানেই মিলছে হরেক রকম ছাড়। ক্রেতারাও ইচ্ছেমতো কিনছেন। ক্রোকারিজ পণ্যে একটি কিনলে ১০টি ফ্রি। নারী ক্রেতারা হুমড়ি খেয়ে পড়ছেন সেখানে।

আনন্দচিত্তে অনেকগুলো পণ্য নিয়ে একা একটি স্টলের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন ক্রেতা নাদিয়া ইসলাম। কথা বলে জানা গেল,  ৩৩ হাজার টাকার ১২ পিস পণ্য, মাত্র সাড়ে ২৪ হাজার টাকায় কেনায় আনন্দিত তিনি। কিন্তু এগুলো কেনার মাঝে সন্তানের জেদে স্বামী গেছেন শিশু পার্কে দোল খাওয়াতে। তাই তাদের ফেরার অপেক্ষায় রয়েছেন নাদিয়া। ডেজিনি নামের দেশীয় একটি প্রতিষ্ঠান থেকে এসব পণ্য কিনেছন তিনি।

মেলায় তৈজসপত্র বিক্রি করা প্রতিষ্ঠানটির বিক্রেতা মাহফুজ জানালেন, মেলা উপলক্ষে ক্রেতাদের বিশেষ অফারে ৩৩ হাজার টাকার ১২ পিস পণ্য সাড়ে ২৪ হাজার টাকায় দেয়া হচ্ছে। ১২ পিসের মধ্যে রয়েছে- আধুনিক প্রযুক্তির ইটালিয়ান চুলা, ২৮ লিটারের মাইক্রোয়েভ ওভেন, মাল্টি কুকার, কারি কুকার, রাইস কুকার, স্যান্ডউইচ মেকার, পানির ফিল্টার, ৫টি রান্নার হাঁড়ি, ব্লেন্ডার ও রুটি মেকার।

পরে ক্রেতারা তার পছন্দমতো পণ্য পরিবর্তনের সুযোগও পাবেন এখানে বলে জানালেন মাহফুজ।

মেলা ঘুরে দেখা গেছে, ক্রেতাদের সবচেয়ে বেশি আগ্রহ গৃহস্থালি পণ্যের প্রতি। প্লাস্টিকের তৈরি গৃহস্থালি পণ্যের পাশাপাশি রয়েছে প্রেসার কুকার, জুস মেকার, জুস ব্লেন্ডার, ওভেন, রাইস কুকারসহ নানা ধরনের তৈজসপত্র ও ইলেক্ট্রনিক পণ্য। এছাড়া ব্লেজার, ঘর সাজানোর বিভিন্ন উপকরণ, খাদ্যপণ্য ও শিশুদের খেলনা সামগ্রী রয়েছে ক্রেতাদের পছন্দের শীর্ষে।

যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে রান্নার কাজ সহজ ও সুন্দরভাবে পরিবেশনের জন্য বাণিজ্য মেলায় মানানসই সব গৃহস্থালি পণ্যের পসরা সাজিয়েছে দেশি-বিদেশি নানা প্রতিষ্ঠান। সৌখিন জিনিসপত্রের পাশাপাশি নিত্য ব্যবহারের তৈজসপত্রও রয়েছে এসব প্রতিষ্ঠানের স্টলে। কোম্পানি এবং পণ্যভেদে দেয়া হচ্ছে বিশেষ অফার, ফ্রিসহ ৫০ শতাংশ পর্যন্ত নগদ মূল্যছাড়।

কিন্তু তুর্কিস কার্পেট প্যাভিলিয়নের ব্যবস্থাপক মোয়াজ্জেম হোসেন জানালেন ভিন্ন কথা। এখানে নাকি ক্রেতারাই অফার ছুড়ে দিচ্ছেন বিক্রেতাকে। কীভাবে?

মোয়াজ্জেম বলেন, আমাদের প্যাভিলিয়নে ক্রেতার সমাগম ঘটছে প্রচুর। তবে অধিকাংশই না কিনে শুধুই দেখছেন। কোন অফার না থাকায় তারা বলছেন, শেষের দিকে যখন ৫০ শতাংশ ছাড় দেবেন তখন এসে কিনবো।

তাহলে আপনারা কি মেলার শেষের দিকে মূল্য ছাড় দিয়ে থাকেন?

জবাবে তিনি বললেন, না। আমাদের পণ্যে ছাড়ের তেমন সুযোগ নেই। ক্রেতারা নিজ থেকেই উল্টো ছাড় দেয়ার অফার দিচ্ছেন আমাদের।

এখানে ৫ হাজার থেকে শুরু করে ৫০ হাজার টাকা মূল্যের কার্পেট শো করা রয়েছে বলে জানালেন এই বিক্রয় ব্যবস্থাপক।

এদিকে মেলায় মিয়াকো ব্র্যান্ডের ওয়াশিং মেশিন কিনলে সঙ্গে দেয়া হচ্ছে পাঁচটি উপহার।

মেলার প্রধান ফটক দিয়ে ঢুকতেই নান্দনিক সব আসবাবপত্রের প্রিমিয়াম-প্যাভিলিয়ন চোখে পড়বে। এর মধ্যে রয়েছে— পারটেক্স, হাতিল, নাভানা, নাদিয়া, রিগ্যাল, আকতার, হাই-টেক ফার্নিচার প্রভৃতি। মেলা উপলক্ষে প্রায় সব প্রতিষ্ঠানই নিয়ে এসেছে তাদের নতুন নতুন পণ্য। ক্রেতাদের জন্য আছে মূল্যছাড়ও।

রিগ্যাল ফার্নিচারের সিনিয়র ব্র্যান্ড ম্যানেজার দেবাশীষ সরকার বলেন, ক্রেতাদের পছন্দ বিবেচনায় রেখে আমরা ডিজাইন ও নকশায় বৈচিত্র্য এনেছি। এসব ফার্নিচারে ক্রেতারা ১০ থেকে ২০ শতাংশ পর্যন্ত ছাড় পাচ্ছেন। মেলা ছাড়াও এ অফারে সারা দেশে আমাদের শোরুম থেকেও ক্রেতারা পছন্দের ফার্নিচার কিনতে পারবেন।

এদিকে পোশাক হিসেবে তরুণ-তরুণীদের পছন্দের শীর্ষে ব্লেজার। শীতে স্টাইলিশ আউটফিট হিসেবে ব্লেজারের কদরও রয়েছে বেশ। সব ধরনের ক্রেতা-দর্শনার্থীর কথা মাথায় রেখে মেলায় বাহারি স্যুট, কোট-ব্লেজার এনেছে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান।

নানা অফারে ১ হাজার ৩০০ টাকা থেকে শুরু করে সাড়ে ৬ হাজার টাকায় পাওয়া যাচ্ছে বিভিন্ন রঙ ও সাইজের ব্লেজার। এছাড়া ১০০ থেকে দুই হাজার টাকা পর্যন্ত নগদ মূল্যছাড়ও দিচ্ছে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান।

আর ভিশন পণ্য কিনলে রাশিয়ায় অনুষ্ঠিতব্য ফুটবল বিশ্বকাপ দেখার সুযোগ মিলবে।

ভিশন ইলেক্ট্রনিক্স প্যাভিলিয়নের ইনচার্জ মো. মোমিনুল হক জানান, মেলা থেকে ভিশনের যে কোনো পণ্য কিনলে ক্রেতাকে দেয়া হবে গোল্ড কার্ড। এটি স্ক্র্যাচ (ঘষে) করে সৌভাগ্যবান ক্রেতা পেতে পারেন মাঠে বসে রাশিয়ায় আয়োজিত বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা দেখার সুযোগ।

এছাড়া নগদ ছাড় ও গিফট পাওয়ার সুযোগ রয়েছেই, যোগ করেন তিনি।

ছবি: ওসমান গণি

কেএইচ/এএল

 
.

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad