বর্ণবাদের কারণে যুক্তরাষ্ট্র ছাড়তে চান চার্লিস থেরন!

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৬ এপ্রিল ২০১৮ | ১৩ বৈশাখ ১৪২৫

বর্ণবাদের কারণে যুক্তরাষ্ট্র ছাড়তে চান চার্লিস থেরন!

পরিবর্তন ডেস্ক ১:৩১ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ১৬, ২০১৮

print
বর্ণবাদের কারণে যুক্তরাষ্ট্র ছাড়তে চান চার্লিস থেরন!

যুক্তরাষ্ট্র ছাড়ার ঘোষণা দিয়ে চমকে দিলেন চার্লিস থেরন। এ হলিউড তারকা জানান, বর্ণবাদী আচরণের কারণে দেশ ছেড়ে যেতে ইচ্ছা করে তার।

কিছুদিন আগে ইলি ম্যাগাজিনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান ও ভবিষ্যত নিয়ে মুখ খুলেন চার্লিস থেরন।

তিনি যুক্তরাষ্ট্রের প্রশাসন নিয়ে প্রশ্ন তুলেন। জানান, দেশটিতে বর্ণবাদ খুবই বেড়েছে।

চার্লিস থেরনের ঘরে রয়েছে ছয় ও দুই বছরের আফ্রিকান-আমেরিকান দুই দত্তক শিশু। ‍যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমানে রাজনৈতিক ও সামাজিক অবস্থায় সন্তানদের নিরাপত্তা নিয়ে তিনি উদ্বিঘ্ন। নায়িকা জানান, আমেরিকার কিছু অঞ্চলে সন্তানদের নিতে চান না। অঞ্চলগুলো খুবই সমস্যাসংকুল।

সন্তানদের দিকে তাকিয়ে অনেক সময় তার আমেরিকা ছেড়ে যেতে ইচ্ছে করে। কারণ বর্ণের কারণে তাকে যেভাবে দেখা হয়, বাচ্চাদের সেভাবে দেখা হয় না।

৪২ বছর বয়সী চার্লিস থেরনের জন্ম দক্ষিণ আফ্রিকা। ওই অঞ্চলের জাতিবিদ্বেষী পরিবেশে বড় হন তিনি।

অসংখ্য জনপ্রিয় সিনেমায় অভিনয় করেছেন চার্লিস থেরন। পেয়েছেন একাডেমি অ্যাওয়ার্ডও। চলতি বছর মুক্তি পেয়েছে তার দুই সিনেমা— তুলি ও গ্রিঙ্গো।

ডব্লিউএস

 
.




আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad