ব্যায়াম করার আগে খাওয়া উচিৎ যে খাবারগুলো

ঢাকা, সোমবার, ২৫ জুন ২০১৮ | ১০ আষাঢ় ১৪২৫

ব্যায়াম করার আগে খাওয়া উচিৎ যে খাবারগুলো

পরিবর্তন ডেস্ক ১১:৪৬ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ১৩, ২০১৮

print
ব্যায়াম করার আগে খাওয়া উচিৎ যে খাবারগুলো

শরীর সুস্থ রাখার জন্যই আমরা ব্যায়াম করে থাকি। কিন্তু আমরা অনেকেই সঠিকভাবে জানি না ব্যায়াম করার আগে ঠিক কী খাওয়া উচিত? অনেকেই মনে করেন, খালি পেটে এক্সারসাইজ করা উচিত। অথচ, ডায়েটিশিয়ানরা জানাচ্ছেন, খালি পেটে ব্যায়াম করা উচিত নয়, এতে শরীর খারাপ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই ব্যায়ামের আগে এমন কিছু খাওয়া উচিত যা জলদি পুষ্টি জোগাতে সাহায্য করে। জেনে নিন এমনই কিছু খাবারের নাম।

কলা: কলাকে বলা হয় প্রাকৃতিক পাওয়ার হাউজ। কলার মধ্যে রয়েছে প্রচুর পরিমাণ কার্বহাইড্রেট (যা এনার্জি জোগায় ও সহজে হজম হয়) এবং পটাশিয়াম। শরীরে পটাশিয়াম বেশিক্ষণ জমা থাকে না। ফলে কলা নিমেষে পুষ্টি জোগাতে দারুণ উপকারী। সকালে ব্যায়াম শুরু করার আগে একটা মাঝারি মাপের কলা খেয়ে নিন। ৩০ মিনিট অপেক্ষা করুন জিমে যাওয়ার আগে।

ওটস: ওটসের মধ্যে থাকা ফাইবার রক্তে কার্বহাইড্রেটের পরিমাণ বাড়াতে সাহায্য করে। ওয়ার্কআউটের সময় এনার্জি জোগাতে দারুণ উপকারী ওটস। সেই কারণেই ব্রেকফাস্ট হিসেবে ওটসের গুরুত্ব অপরিসীম। এ ব্যায়ামের ৩০ মিনিট আগে খেতে পারেন এক কাপ ওটস।

ব্রাউন ব্রেড: এক পিস ব্রাউন ব্রেডে থাকা কার্বহাইড্রেট এনার্জি বাড়াতে সাহায্য করে। সাথে সেদ্ধ ডিম ও মধু জোগায় প্রোটিন। ব্যায়ামের ৪৫ মিনিট আগে খান। আপনার এনার্জি সকলকে হিংসে করবে।

ফল ও ইয়োগার্ট: ফলের মধ্য রয়েছে কার্বহাইড্রেট, ইয়োগার্ট রয়েছে প্রোটিন। ব্যায়ামের আগে খাওয়ার জন্য এই কম্বিনেশন দারুণ। ঘুম থেকে উঠে খেয়ে নিন একটা কলা ও এক বাটি দই। ৩০ মিনিট পর জিমে গেলে নিজেই বুঝবেন তফাত্টা।

কিছু টিপস:
ব্যায়ামের আগে অবশ্যই এক গ্লাস পানি পান করে নেবেন। এর ফলে শরীর ভালোভাবে আর্দ্র থাকবে। জিমে বা ব্যায়ামে যাওয়ার এক ঘণ্টা আগে কাবোর্হাইড্রেট জাতীয় খাবার খেতে হবে।
ব্যায়ামের আগে ফল খেতে পারেন। ব্যায়ামের আগে খাওয়ার জন্য আপেল বেশ আদর্শ ফল।
কখনোই খালি পেটে ব্যায়াম করতে যাবেন না। ব্যায়ামের ফলে যে চাপ পড়বে সেটি শরীরের শর্করার মাত্রা কমিয়ে দিতে পার। যার ফলে হাইপোগ্লেসিমিয়া হয়ে শরীর অবসন্ন হয়ে যেতে পারে। তাই কখনোই খালি পেটে ব্যায়াম করতে যাবেন না।

ডায়াবেটিক হলে ভারি খাবারের পর ব্যায়াম করা প্রয়োজন। তবে সাধারণ লোকের জন্য ভারি খাবারের দুই তিন ঘণ্টা পর ব্যায়াম করলে ভালো হয়। এতে দেহের শর্করার মাত্রা ঠিক থাকে।

ইসি/আরপি

 
.




আলোচিত সংবাদ