বার্সার সবচেয়ে বড় খলনায়ক জর্ডি আলবা
Back to Top

ঢাকা, বুধবার, ২৭ মে ২০২০ | ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

বার্সার সবচেয়ে বড় খলনায়ক জর্ডি আলবা

পরিবর্তন ডেস্ক ১২:১৫ অপরাহ্ণ, মে ০৮, ২০১৯

বার্সার সবচেয়ে বড় খলনায়ক জর্ডি আলবা

প্রথম লেগে ৩-০তে এগিয়ে থাকার পরও গতকাল মঙ্গলবার রাতে অ্যানফিল্ডে ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত হয়েছে বার্সেলোনা। দুই লেগ মিলিয়ে ৪-৩ অগ্রগামিতায় টানা দ্বিতীয় এবং সব মিলে নবমবারের মতো চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে উঠে গেছে লিভারপুল। ফলে আরও একবার সেমি ফাইনালেই স্বপ্নভঙ্গ বার্সার। তো অ্যানফিল্ডে বার্সেলোনার এই ঐতিহাসিক ব্যর্থতার কারণ কী? এই বিপর্যয়ের জন্য দায়ী কে কে?

পারফরম্যান্সের ভিত্তিতে দায়ী বার্সেলোনার সবাই। কোচ আর্নেস্তো ভালভার্দে থেকে শুরু করে অধিনায়ক লিওনেল মেসি, লুইস সুয়ারেজ, জেরার্ড পিকে, এমনকি গোলরক্ষক মার্ক আন্দ্রে তের স্টেগানও দায় এড়াতে পারেন না। আক্রমণভাগে মেসি-সুয়ারেজরা নিজেদের ছায়া হয়েছিলেন, বিবর্ণ, ম্লান। মেসি-সুয়ারেজরা একটা গোল করতে পারলেই ম্যাচের চিত্রনাট্যটা পাল্টে যেত। কিন্তু গোল করার দূরের কথা, লিভারপুলের রক্ষণে তারা আতঙ্কই ছড়াতে পারেননি। ছিলেন মূর্তি হয়ে!

তবে ম্যাচ বিশ্লেষকদের বিশ্লেষণে উঠে এসেছে, কাল বার্সার অ্যানফিল্ড বিপর্যয়ে মেসি-সুয়ারেজদের চেয়েও বড় খলনায়ক ছিলেন লেফট-ব্যাক জর্ডি আলবা। ক্লাব বার্সেলোনার হয়ে পুরো মৌসুমটিই দুর্দান্ত কাটিয়েছেন কাতালুনিয়ান ডিফেন্ডার। কিন্তু ‘আসল’ ম্যাচে এসেই জর্ডি আলবা করেছেন দু-দুটি অমার্জনীয় ভুল।

কাল অ্যানফিল্ডে বার্সেলোনা যে সমীকরণ মতো গুণে গুণে ৪ গোল হজম করেছে, তার প্রথম দুটি গোলই হয়েছে জর্ডি আলবার ভুলে। ম্যাচের ৭ মিনিটের মাথায়ই আলবা করে বসেন প্রথম ভুল। ফাঁকায় দাঁড়ানো আলবা চাইলে অনায়াসেই বাতাসে উড়ে আসা বলটা নিজের নিয়ন্ত্রণে নিতে পারতেন। কিন্তু তিনি মুহূর্তের ভুলে বল হেড করে তুলে লিভারপুলের সেনেগালিজ উইঙ্গার সাদিও মানের পায়ে। মানে বল পেয়ে দ্রুতই পাস বাড়ান সতীর্থ ডিভক অরিগির দিকে। বেলজিয়ান তরুণ দ্রুত গতিতে বক্সের ভেতর ঢুকে শট নেন বার্সার পোস্টে। তবে তার শট ঠেকিয়ে দিয়েছিলেন বার্সার জার্মান গোলরক্ষক মার্ক-আন্দ্রে তের স্টেগান। কিন্তু তার পাঞ্চ করা বল বাউন্স খেয়ে এসে পড়ে হেন্ডারসনের পায়ে। ইংলিশ ডিফেন্ডার বল জালে জড়াতে ভুল করেননি।

৫৪ মিনিটে লিভারপুলের দ্বিতীয় গোলটিও আলবার ভুলের ফসল। তার পা থেকে অতি সহজেই বল কেড়ে নেন ট্রেন্ট আলেকজান্ডার আর্নল্ড। তিনি বল নিজের নিয়ন্ত্রণে নিয়েই পাস বাড়ান ডাচ মিডফিল্ডার ইমেলে উইজিনালডামকে। ডাচ তারকা বুলেট শটে বল জড়িয়ে দেন বার্সার জালে।

স্বপ্নভঙ্গের কাব্য কাঁটাছেড়া করে বার্সেলোনা হয়তো ব্যর্থতার আরও অনেক কারণই খুঁজে পাবে। দলের ঐতিহাসিক এই ব্যর্থতার দায়টা সবাই ভাগ করেই নিতে চাইবে। তবে আলবা নিজে জানবেন, দলের স্বপ্নভঙ্গের জন্য তিনিই বড় কালপ্রিট। অবসর সময়ে যতবারই ম্যাচটা পুনরায় দেখবেন, নিজেকে হয়তো ক্ষমা করতে পারবেন না।

এমন অমার্জনীয় ভুলের জন্য তিনি নিজেকে ক্ষমা করবেন কিভাবে?

কেআর

 

: আরও পড়ুন

আরও