মসজিদের হারাম ও মসজিদে নববীতে সেলফি তোলা নিষিদ্ধ
Back to Top

ঢাকা, রবিবার, ৫ জুলাই ২০২০ | ২১ আষাঢ় ১৪২৭

মসজিদের হারাম ও মসজিদে নববীতে সেলফি তোলা নিষিদ্ধ

মোহাম্মদ ফিরোজ, সৌদি আরব ১:২৩ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০২০

মসজিদের হারাম ও মসজিদে নববীতে সেলফি তোলা নিষিদ্ধ

বিশ্বের মুসলিম উম্মাহর সর্বোচ্চ মর্যাদা ও সম্মানের স্থান মসজিদ আল-হারাম বা হারাম শরীফ বা মসজিদে হারাম। যা পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনায় অবস্থিত। বিশ্ব মুসলিম এ মসজিদে অভ্যন্তরে অবস্থিত পবিত্র কাবা শরীফ ও মদিনায় মসজিদে নববীর এ দুই পবিত্র স্থানে সেলফি তোলা নিষিদ্ধ করেছেন হারামাইন কর্তৃপক্ষ।

মক্কা নগরীর মসজিদে হারাম তথা কাবা শরিফ ও মদিনার মসজিদে নববীসহ হজ ও ওমরা করতে এসে মানুষ সেলফি তোলেন। এটি হারাম না হালাল মানুষ তা না জেনে কিছু মানুষ সেলফি তোলা নিয়ে ব্যস্ত। এতে অন্যদের সমস্যা হয়। এজন্য সৌদি আরবের হারামাইন ওয়াশ শারিফাইন কর্তৃপক্ষ এক ফরমান জারি করেছে।

বিষয়টি সামনে এলো একটি ফতোয়াকে কেন্দ্র করে, ফতোয়াটি পেশ করেন মসজিদুল হেরাম এর দারুল ইবতার সদস্য ও ইসলামী আইন শাস্ত্রের অধ্যাপক মোহাম্মদ আল মাসুদি। ওই ফতোয়ায় তিনি বলেছেন, পবিত্র কাবা শরীফে সেলফি তোলা এক ধরণের শিরক। তিনি তার বক্তব্যে বলেন এ অবস্থায় কেউ যদি সেলফি তোলে প্রকাশ করে তা হবে এক ধরনের রিয়া, আর রিয়া শিরকের সমতুল্য বিষয়।

বেশ কয়েক বছর থেকে দেখা যাচ্ছে অনেকেই হজ ও ওমরায় সেলফি নিয়ে ব্যস্ত থাকেন। এনিয়ে

পবিত্র নগরীতে সেলফি তোলা নিয়ে বিতর্কের সৃষ্টি হয়। বিষয়টি নিয়ে সৌদি আরব সহ বিভিন্ন দেশের গণমাধ্যমে আলোচনা ও সমালোচনার ঝড় ওঠে। সমালোচকরা মনে করেন তারা হজ করতে নয়, মনে হচ্ছে আনন্দ ভ্রমণ করতে এসেছেন।

মুসলিমদের এ পবিত্র স্থানে অমুসলিমদের প্রবেশ নিষিদ্ধ। সেখানে ইসরাইলের এক ইহুদি ধর্মযাজক প্রবেশ করেন এবং সেলফি নেন। সে সময় সৌদি সরকার এ সেলফির কারণে চরম বিতর্কের মাঝে পড়ে যায়।

ইসরাইলের ধর্মযাজকের সেলফির ঘটনার পর এক তুর্কী দম্পতির নিয়ত ছিল পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনায় যাওয়ার। তারা সেখানে গিয়ে ভিডিও করে তা প্রকাশ করেন। আর এতে আরো চরম বিতর্কের মুখে পড়ে হারামাইন কর্তৃপক্ষ।

এছাড়া বিভিন্ন সময় এ সেলফির কারণে বিতর্কের মুখোমুখি হয়েছিল সৌদি কর্তৃপক্ষ। সে কারণে এবার পবিত্র নগরীতে সেলফি তোলায় জোরদার নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে সৌদির হারামাইন কর্তৃপক্ষ।

জানা গেছে, সেখানে কাউকে সেলফি তুলতে দেখলেই দায়িত্ব পালনকারী আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী মোবাইল বাজেয়াপ্ত করে নেবে।

এএসটি/

 

: আরও পড়ুন

আরও