খান আতা কত বড় রাজাকার ছিলেন? পড়ুন বাচ্চুর জবাব

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২১ নভেম্বর ২০১৭ | ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৪

খান আতা কত বড় রাজাকার ছিলেন? পড়ুন বাচ্চুর জবাব

পরিবর্তন প্রতিবেদক ১২:১৩ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৬, ২০১৭

print
খান আতা কত বড় রাজাকার ছিলেন? পড়ুন বাচ্চুর জবাব

সম্প্রতি নিউইয়র্কে সাংস্কৃতিক অভিবাসীদের সমাবেশে নাট্য ব্যক্তিত্ব নাসিরউদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু বলেছেন, ‘খান আতা অনেক বড় শিল্পী কোনো সন্দেহ নেই। কিন্তু তিনি রাজাকার ছিলেন।’ খান আতার বিখ্যাত সিনেমা ‘আবার তোরা মানুষ হ’ সম্পর্কে বলেন, ‘‘আবার তোরা মানুষ হ’ এটাও একটি নেগেটিভ ছবি। মুক্তিযোদ্ধাদের সে বলতেছে আবার তোরা মানুষ হ— ‘আরে তুই মানুষ হ’ তাই না। তুই মানুষ হ তুই তো রাজাকার ছিলি।”

.

বাচ্চুর এ সব কথার প্রেক্ষিতে বিতর্কের ঝড় উঠেছে নানান মহলে। অনেকে তার দিকে ছুড়ে দিয়েছেন প্রশ্ন। এ প্রসঙ্গে মুখ খুললেন ‘গেরিলা’ নির্মাতা।

‘খান আতাউর রহমান প্রসঙ্গ’ শিরোনামের দীর্ঘ ফেসবুক পোস্ট লেখেন বাচ্চু। এক পর্যায়ে বলেন, ‘খান আতাউর রহমান একজন সৃষ্টিশীল মানুষ কিন্তু ১৯৭১ সালে তিনি দেশ ও মানুষের পাশে দাঁড়াতে ব্যর্থ হয়েছিলেন। ব্যক্তিগতভাবে আমার তার বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ নাই। শিল্পী হিসাবে তার প্রশংসা করি। কিন্তু মুক্তিযুদ্ধকালে তার ভূমিকার সমালোচনা তো করতেই পারি।’

এবার পড়ে নেওয়া যাক পুরো লেখাটি—

“সম্প্রতি নিউইয়র্কে সংস্কৃতি কর্মীদের এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আমার বক্তব্য শেষে এক প্রশ্ন-উত্তরে কৃতি চলচ্চিত্র নির্মাতা, সংগীত পরিচালক ও অভিনেতা খান আতাউর রহমান সম্পর্কে আমার একটি উক্তিকে কেন্দ্র করে ফেসবুক ও অনলাইনে সংবাদ মাধ্যমে তর্ক-বিতর্ক চলছে। অহেতুক বিতর্ক নিরসনে আমার কথা পুনর্ব্যক্ত করছি।

* বিশিষ্ট চলচ্চিত্র নির্মাতা ও সংগীত পরিচালক খান আতাউর রহমান ১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণে অপারগ হয়েছিলেন। যে ৫৫ জন বুদ্ধিজীবী ও শিল্পী ১৯৭১-এর ১৭ মে মুক্তিযুদ্ধকে ‘আওয়ামী লীগের চরমপন্থীদের কাজ’ বলে নিন্দাসূচক বিবৃতি দিয়েছিলেন দুঃখজনকভাবে খান আতাউর রহমান তার ৯ নম্বর স্বাক্ষরদাতা ছিলেন। ১৭ মে ১৯৭১ দৈনিক পাকিস্তান পত্রিকা দ্রষ্টব্য।

* ১৯৭২ সালে বাংলাদেশ সরকার ড. নীলিমা ইব্রাহীমকে প্রধান করে ৬ সদস্যের কমিটি গঠন করেছিলেন রেডিও টেলিভিশনে পাকিস্তানীদের প্রচার কার্যে সহযোগিতাকারীদের সনাক্ত করার জন্য। ১৯৭২-এর ১৩ মে নীলিমা ইব্রাহীম কমিটি যে তালিকা সরকারকে পেশ করেন সে তালিকায় ৩৫ নম্বর নামটি খান আতাউর রহমানের। তালিকাভুক্তদের সম্পর্কে কমিটির সুনির্দিষ্ট বক্তব্য রয়েছে। তালিকাভুক্ত শিল্পীদের ৬ মাস পর অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ পুনর্বিবেচনার সুপারিশ করা হয়। দ্রষ্টব্য- বাংলাদেশ বেতার তথ্য মন্ত্রণালয়ের নং জি১১।সি-১।৭২।১৬/৬/৭২

* একথা অনস্বীকার্য যে খান আতাউর রহমান একজন গুণী শিল্পী। তার সৃষ্টিশীলতা নিয়ে কোনো প্রশ্ন নাই। মুক্তিযুদ্ধ পূর্বকালে তার চলচ্চিত্রসমূহ আমাদের ঋদ্ধ ও উজ্জীবিত করেছে। যেমন ‘সোয়ে নাদীয়া জাগো পানি’, ‘নবাব সিরাজদ্দৌলা’সহ অনেক চলচ্চিত্র। কিন্তু মুক্তিযুদ্ধের সময় তার ভূমিকা প্রশ্নবিদ্ধ। তিনি পাকিস্তানের সমর্থক ছিলেন এবং তা তার রাজনৈতিক সিদ্ধান্তে। আবার আলতাফ মাহমুদ, জহির রায়হান, শহীদুল্লাহ কায়সারের মতো শিল্পী সাহিত্যিকরা মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছিলেন তাদের স্বীয় রাজনৈতিক সিদ্ধান্তে এবং শাহাদাত বরণ করেছেন। অনেকের মনে প্রশ্ন উদ্রেক হয়েছে যে ৭১ সালে ১৬ ডিসেম্বর অব্যাহতিতে কেন আমি বা আমরা তাকে রক্ষা করেছিলাম। কারণ খান আতাউর রহমান কোন প্রকার মানবতাবিরোধী কর্মে লিপ্ত ছিলেন না যদিও পাকিস্তানীদের সমর্থনে রেডিও টেলিভিশনে অনুষ্ঠান করেছেন। আর খান আতাউর রহমান একজন শিল্পী এবং ৯ মাসে তার কর্ম সম্পর্কে আমরা অবহিত ছিলাম না। তাছাড়া আমরা এও ভেবেছি ইচ্ছায় হোক অনিচ্ছায় হোক অনেকে পাকিস্তানিদের পক্ষাবলম্বন করেছে। আমরা তা বিচারের এখতিয়ার রাখি না। তাছাড়া মুক্তিযোদ্ধাদের এ কথা বাধ্যতামূলক মানতে বলা হয়েছিল যে কোনো অবস্থাতেই যুদ্ধোত্তর সময়ে কাউকে ক্ষতি বা আঘাত করা যাবে না। বিচারিক প্রক্রিয়ায় দোষী সাব্যস্তদের বিচার করা হবে রাষ্ট্রীয়ভাবে। মুক্তিযোদ্ধারা সেই আদেশ পুরোপুরিভাবে মেনেছিল বিধায় যুদ্ধোত্তরকালে প্রাণহানির ঘটনা উল্লেখযোগ্যভাবে কম হয়েছিল। জেনেভা কনভেনশন মুক্তিযোদ্ধারা পুরোপুরি মেনেছিল কিন্তু পাকিস্তানিরা জেনেভা কনভেনশনের তোয়াক্কা করেনি।

* আমার মূল বক্তব্যে নয়, এক প্রশ্নের উত্তরে ইতিহাসের দায় থেকে আমি খান আতাউর রহমান সম্পর্কে উক্তিটি করেছিলাম। সবশেষে আবারো বলছি খান আতাউর রহমান একজন সৃষ্টিশীল মানুষ। কিন্তু ১৯৭১ সালে তিনি দেশ ও মানুষের পাশে দাঁড়াতে ব্যর্থ হয়েছিলেন। ব্যক্তিগতভাবে আমার তার বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ নাই। শিল্পী হিসাবে তার প্রশংসা করি কিন্তু মুক্তিযুদ্ধকালে তার ভূমিকার সমালোচনা তো করতেই পারি।

* আশা করি আমার উপরোল্লিখিত বক্তব্য অনুধাবনে সকল তর্ক- বিতর্কের অবসান ঘটবে।”

ডব্লিউএস/এএসটি

আরো পড়ুন... 
‘খান আতা বড় শিল্পী কিন্তু সে রাজাকার’
‘খান আতা রাজাকার’, জবাবে কী বললেন আগুন!

print
 

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad