ব্রি উদ্ভাবিত ধানের নতুন জাত ব্রি ধান-৮১অবমুক্ত

ঢাকা, রবিবার, ২২ অক্টোবর ২০১৭ | ৭ কার্তিক ১৪২৪

ব্রি উদ্ভাবিত ধানের নতুন জাত ব্রি ধান-৮১অবমুক্ত

জাহাঙ্গীর আলম, গাজীপুর ৮:৫৯ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১২, ২০১৭

print
ব্রি উদ্ভাবিত ধানের নতুন জাত ব্রি ধান-৮১অবমুক্ত

ধানের উদ্ভাবিত নতুন একটি জাত (ব্রি ধান৮১) কৃষক পর্যায়ে চাষাবাদের জন্য বুধবার জাতীয় বীজ বোর্ড অবমুক্ত করেছে।

বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট (ব্রি) উন্নত গুণমান সম্পন্ন সুগন্ধ ও সম্ভাবনাময় নতুন এ ধানের জাত ‘ব্রি ধান৮১’ উদ্ভাবন করেছে। এ নিয়ে ব্রি উদ্ভাবিত উচ্চ ফলনশীল ধান জাতের সংখ্যা হলো ৮৬টি। এসব জাতের মধ্যে ছয়টি হাইব্রিড ধানের জাত রয়েছে। দেশের আশি ভাগের বেশি ধানি জমিতে এসব ধান জাতের চাষ হয়। যা থেকে দেশের মোট ধান উৎপাদনের শতকরা ৯১ ভাগের বেশি হয়।

ব্রি’র মহাপরিচালক ড. মোঃ শাহজাহান কবির জানান, ইরান থেকে সংগৃহীত জাত Amol-৩ এর সঙ্গে ব্রি ধান২৮ এর সংকরায়ণের মাধ্যমে নতুন জাত ব্রি ধান৮১ উদ্ভাবন করা হয়েছে। ব্রি ধান৮১ বোরো মৌসুমের জনপ্রিয় ও মেগা জাত ব্রি ধান২৮ এর একটি পরিপূরক জাত। এটি প্রতিকূল পরিবেশে ঢলে পড়া প্রতিরোধী। জাতটির জীবনকাল ১৪০-১৪৫ দিন। এ জাতের একহাজার পুষ্ট ধানের ওজন প্রায় ২০.৩ গ্রাম। ব্রি ধান৮১ জাতে অ্যামাইলোজ রয়েছে শতকরা ২৬.৫ ভাগ এবং এতে উচ্চ মাত্রায় আমিষ রয়েছে (১০.৩ শতাংশ)। এর চালের আকার স্থানীয় জিরার মতো লম্বা ও চিকন বিধায় ব্যাপক জনপ্রিয় হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। রান্নার পর এর ভাত ১.৬ গুণ লম্বা হয়।
জাতটিতে সুগন্ধ ছাড়া উন্নত গুণমান সম্পন্ন ধানের সকল বৈশিষ্ট্যই বিদ্যামান থাকায় এটি রপ্তানি সম্ভাবনাময়। নতুন উদ্ভাবিত জাতটির গড় ফলন হেক্টরে ৬.০-৬.৫ টন। উপযুক্ত পরিচর্যা পেলে এটি হেক্টরে ৮.০ টন ফলন দিতে সক্ষম।

এমজেএ/এএসটি

print
 

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad