চুল কেটে গৃহবধূ নির্যাতন, পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলা

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৭ | ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৪

চুল কেটে গৃহবধূ নির্যাতন, পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলা

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি ৪:০০ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৭

print
চুল কেটে গৃহবধূ নির্যাতন, পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলা

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় যৌতুকের দাবীতে গৃহবধূকে মাথার চুল কেটে ও মারধর করে নির্যাতন করায় ৫ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। শনিবার সকালে নির্যাতিত গৃহবধূ তানিয়া আক্তারের বাবা আবুল বাশার বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন। মামলায় উল্লেখ করা হয় পাষন্ডরা তানিয়াকে সুধু মাথার চুল কেটে এলোপাতারী মারধর নয় তাকে যৌন নিপিরন করে বাড়ি হতে বের করে দেয়া হয়।

.

 

মামলায় আসামিরা হলেন- গ্রেফতারকৃত স্বামী ওসমান গনি নয়ন, তার মা হাওয়া নূর বেগম, ছোট ভাই রোমান ও পলাতক বাবা আমিন সিকদার ওরফে জালাল সিকদার, নয়নের ফুফাতো বোন হোসনে আরা বেগম।

মামলায় উল্লেখ করা হয়, এক লাখ টাকা যৌতুকের দাবীতে শুক্রবার সকালে তানিয়াকে তার স্বামী, শশুর, শ্বাশুরী ও দেবর ও তাদের ফুফুতো বোন মিলে বেধরক মারধর করে মাথার চুল কেটে দেয়। এসময় তার চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন একত্রিত হয়ে ওই বাড়ি থেকে তানিয়াকে উদ্ধার করে এবং ৩ জনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

মামলা গ্রহণের সত্যতা নিশ্চিত করে ফতুল্লা মডেল থানার ওসি কামাল উদ্দিন জানান, শরীয়তপুর জেলার জাজীরা এলাকার দিনমজুর আবুল হোসেনের মেয়ে তানিয়া আক্তারকে (১৯) ছয় মাস আগে পারিবারিক ভাবে বিয়ে করে ফতুল্লার নিশ্চিন্তপুর এলাকার জালাল সিকদারের ছেলে নয়ন। বিয়ের পর থেকে তানিয়াকে এক লাখ টাকা যৌতুকের দাবীতে বর্বর নির্যাতন চালায়। বিষয়টি আরো তদন্ত করা হচ্ছে এবং পলাতক আসামীদের গ্রেফতারে চেষ্টা চলছে।

এপি/এএস

চুল কেটে গৃহবধূকে নির্যাতন, স্বামী-শাশুড়ি-দেবর আটক

print
 

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad