আখেরি মোনাজাতে আজ শেষ হচ্ছে এবারের বিশ্ব ইজতেমা

ঢাকা, রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১১ ফাল্গুন ১৪২৬

আখেরি মোনাজাতে আজ শেষ হচ্ছে এবারের বিশ্ব ইজতেমা

জাহাঙ্গীর আলম, গাজীপুর ১০:৩৮ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৯, ২০২০

আখেরি মোনাজাতে আজ শেষ হচ্ছে এবারের বিশ্ব ইজতেমা

গাজীপুরের টঙ্গীর তুরাগ তীরে মুসলিম জাহানের দ্বিতীয় বৃহত্তম গণ জমায়েত বিশ্ব ইজতেমার আনুষ্ঠানিকতা চলছে। রোববার বাদ ফজর বয়ান করেন মাওলানা ইকবাল হাফিজ। বাংলায় তরজমা করেন মাওলানা ওয়াসেকুল ইসলাম। বেলা ১১টায় আখেরি মোনাজাত হওয়ার কথা রয়েছে। মোনাজাত পরিচালনা করবেন দিল্লীর মাওলানা জমশেদ। আর এর মাধ্যমেই শেষ হবে এবারের বিশ্ব ইজতেমা।

এদিকে, আখেরি মোনাজাতে শরিক হতে বিভিন্ন এলাকা থেকে মুসল্লিরা আসছেন দলে দলে। মোনাজাতের আগ পর্যন্ত এ ঢল অব্যাহত থাকবে। মোনাজাতে শরিক হতে বিপুল সংখ্যক মহিলা টঙ্গীর আশপাশে এসে অবস্থান নিয়েছেন। বাদ ফজর মাওলানা ইকবাল হাফিজের বক্তব্যের পর শুরু হয় হিদায়াতী বয়ান। হিদায়াতী বয়ান করছেন মাওলানা জমশেদ। বাংলায় তরজমা করছেন মাওলানা আশরাফ আলী।

ইজতেমার এই পর্বে ভারত, পাকিস্তান, ইন্দোনেশিয়া, জর্ডান, লিবিয়া, আফ্রিকা, লেবানন, আফগানিস্তান, ফিলিস্তিন, যুক্তরাষ্ট্র, তুরস্ক, ইরাক, সৌদি আরব, ইংল্যান্ডসহ বিশ্বের ৩২টি দেশ থেকে প্রায় আড়াই সহস্রাধিক মুসল্লি অংশ গ্রহণ করেছেন।

আখেরি মোনাজাত প্রচারের জন্য গণযোগাযোগ অধিদফতর ও গাজীপুর জেলা তথ্য অফিস বিশেষ ব্যবস্থা নিয়েছে। গণযোগাযোগ অধিদফতর ইজতেমা ময়দান থেকে আবদুল্লাহপুর ও বিমানবন্দর রোড পর্যন্ত এবং গাজীপুর জেলা তথ্য অফিস ইজতেমা ময়দান থেকে চেরাগআলী, টঙ্গী রেলস্টেশন, স্টেশন রোড ও আশপাশের অলিগলিতে পর্যাপ্ত মাইক সংযোগের ব্যবস্থা করেছে।

মুসল্লিদের ইজতেমা ময়দানে আসা এবং আখেরি মোনাজাত শেষে বাড়ি ফেরা নির্বিঘ্ন করতে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ টঙ্গীমুখী সড়ক-মহাসড়কে ট্রাফিক ব্যবস্থা নিয়ন্ত্রণ নিয়ন্ত্রণ করছে। গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার মো. আনোয়ার হোসেন জানিয়েছেন, ইজতেমায় মুসল্লিদের আসা-যাওয়া নিবিঘ্ন করতে শনিবার দিবাগত ভোর রাত ৪টা থেকে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের গাজীপুর চৌরাস্তায় এবং ঢাকার মহাখালী থেকে যান চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

উত্তরবঙ্গ থেকে আসা গাড়ি গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের কোনাবাড়ি থেকে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এ ছাড়া টঙ্গীমুখী সকল শাখা সড়কগুলো বন্ধ রয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত এ ট্রাফিক ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে।

এদিকে, ইজতেমায় আগত আরো তিন মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে। সকালে তাদের নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। এ নিয়ে বার্ধক্য ও অসুস্থ্যজনিত কারণসহ নানা কারণে এ পর্বে মোট ১০ জন মুসল্লি মারা গেছেন।

জেএ/আরপি

 

সমগ্রবাংলা: আরও পড়ুন

আরও