চোখ বুলিয়ে নিন আইপিএলের ফিকশ্চারে

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৬ এপ্রিল ২০১৮ | ১৩ বৈশাখ ১৪২৫

আইপিএল ২০১৮

চোখ বুলিয়ে নিন আইপিএলের ফিকশ্চারে

পরিবর্তন ডেস্ক ৮:৩৪ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ০৬, ২০১৮

print
চোখ বুলিয়ে নিন আইপিএলের ফিকশ্চারে

২০০৮ সালে ইন্ডিয়ান ক্রিকেট লিগকে (আইসিএল) টেক্কা দেওয়ার জন্য ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের তত্ত্বাবধানে জন্ম হয়েছিল ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল)। গত দশ বছরে এর সফলতার দিকে তাকিয়ে অবাকই হতে হয়। শুরু থেকে ক্রিকেট খেলার ধরণটিকেই প্রভাবিত করেছিল ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক এই লিগ। বিশ্বজুড়ে টি-টুয়েন্টি লিগগুলোর প্রসার ও জনপ্রিয়তার পেছনে সবচেয়ে বড় অবদান আইপিএলেরই। এর প্রভাব এতই সুদূরপ্রসারী যে অনেক ক্রিকেটারই এখন দ্বন্দ্বে পড়ে যান জাতীয় দলে খেলবেন নাকি আইপিএলে খেলবেন। শনিবার, ৭ এপ্রিল শুরু হচ্ছে এই টুর্নামেন্টের একাদশ আসর। পরিবর্তন ডট কম পুরো আসরের ফিকশ্চার তুলে ধরছে পাঠকদের সুবিধার্থে। সাথে রয়েছে ৮টি দল সম্পর্কে কিছু তথ্য-

দুই বছর নিষিদ্ধ থাকার পর আবার ফিরেছে চেন্নাই সুপার কিংস। ভারতীয় উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান মহেন্দ্র সিং ধোনি ফিরেছেন নেতৃত্বে। তাদের অংশ নেয়া ৮ আইপিএলের ৬টিরই ফাইনালিস্ট ছিল দলটি, শিরোপা জিতেছে দুইবার। ধারাবাহিক সাফল্যের এমন রেকর্ড নেই আর কোন ফ্র্যাঞ্চাইজির।

নিষেধাজ্ঞা থেকে ফিরেছে রাজস্থান রয়্যালসও। তবে বল ট্যাম্পারিং চেষ্টার শাস্তি হিসেবে নিষেধাজ্ঞা পাওয়ার কারণে খেলছেন না অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ। এই দায়িত্ব পালন করবেন ভারতীয় টেস্ট দলের সহ-অধিনায়ক আজিঙ্কা রাহানে।

 

ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স শিরোপা ধরে রাখার লক্ষ্যেই নামবে মাঠে। তাদের অধিনায়ক ভারতীয় ব্যাটসম্যান রোহিত শর্মার সফলতার হারও ঈর্ষণীয়। এবার তারা দলে টেনেছে বাংলাদেশের কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমানকে। এদেশের দর্শকদের বিশেষ নজর সবসময়ই থাকবে মুম্বাইয়ের ওপর।

ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলিই একমাত্র ক্রিকেটার যিনি গত দশ আসর ধরে একটি ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়েই খেলছেন। আর এটি, রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। এখানেও অধিনায়ক কোহলি। সাথে আছেন এবি ডি ভিলিয়ার্স, টিম সাউদি ও যুজবেন্দ্র চাহালের মত ক্রিকেটাররা। ফাইনালে উঠে দু'বার আশাহত হওয়া দলটি এবার নিশ্চয় চাইবে ট্রফি জিততে।

 

২০১৬ সালের আইপিএল চ্যাম্পিয়ন সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। তবে বাংলাদেশের দর্শকদের কাছে বড় পরিচয়, দেশের অন্যতম সেরা ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান খেলছেন এই দলে। স্মিথের মত নিষেধাজ্ঞার কারণে খেলছেন না নিয়মিত অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নার। এই দায়িত্ব পালন করবেন নিউজিল্যান্ডের অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। আরো আছেন শিখর ধাওয়ান, ভুবনেশ্বর কুমারের মত ক্রিকেটার।

লোকেশ রাহুল, ক্রিস গেইল, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, ডেভিড মিলার- এবারের আসরের সবচেয়ে ভয়ংকর ব্যাটিং অর্ডার সম্ভবত কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের। ঘরে ফিরেছেন যুবরাজ সিংও। তবে অধিনায়কত্বের দায়িত্ব স্পিনিং-অল রাউন্ডার রবিচন্দ্রন অশ্বিনের ওপর।

 

শুধু সাকিবই না, এবছর কলকাতা নাইট রাইডার্স সম্পর্ক ছিন্ন করেছে তাদের সফলতম অধিনায়ক গৌতম গম্ভিরের সাথেও। এই দায়িত্ব পড়েছে দিনেশ কার্তিকের কাঁধে। দলে আছেন আন্দ্রে রাসেল, ক্রিস লিনের মত টি-টুয়েন্টি স্পেশালিস্টরা।

কলকাতা ছেড়ে ঘরের দল দিল্লি ডেয়ারডেভিলস এর অধিনায়কত্ব করছেন গম্ভির। সাথে আছেন ট্রেন্ট বোল্ট, মোহাম্মদ শামি, ঋষভ পান্ত, পৃত্থি শাওয়ের মত ক্রিকেটাররা। আর কোচ হিসেবে আছেন অস্ট্রেলিয়ান গ্রেট রিকি পন্টিং।

 

সূত্র : নিউজওয়ার্ল্ডইন্ডিয়া ডট ইন।

এসএম

 

 
.




আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad