জজও ভুয়া!

ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭ | ১ পৌষ ১৪২৪

জজও ভুয়া!

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি ১০:১৭ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৩, ২০১৭

print
জজও ভুয়া!

লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার ভূমি কার্যালয়ে প্রতারণার সময় ফজিলত জাহান নীলা (৩৮) নামে এক ভুয়া নারী সহকারী জজকে আটক করা হয়েছে। বুধবার রাত সাড়ে ৭টার দিকে সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. নাজিমুন হায়দার তাকে আটক করে সদর থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেন।

.

আটক নীলা সদর উপজেলার চন্দ্রগঞ্জ থানাধীন দত্তপাড়া ইউনিয়নের করইতোলা গ্রামের মৃত আনোয়ারুল হকের মেয়ে। সে ইতোপূর্বে সদর উপজেলার তোতারখিল আয়েশা উচ্চ বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষিকা ও ঢাকার মধ্য বাড্ডায় একটি কোচিং সেন্টারে কাজ করছেন বলে জানা যায়।

সদর উপজেলা ভূমি অফিস কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার ‘ভূমি উন্নয়ন কর’ সংক্রান্ত বিষয়ে উপজেলা ভূমি অফিসে এসে নিজেকে পটুয়াখালীর সহকারী জজ পরিচয় দেয় নীলা। এ সময় সহকারী কমিশনারকে (ভূমি) চাপ প্রয়োগ করে সুবিধা আদায়ের চেষ্টা করে সে। নীলার কথা-বার্তা ও আচরণে সন্দেহের সৃষ্টি হয়। পরে বুধবার আবার অফিসে আসলে তাকে আটক করা হয়।

সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার মো. নাজিমুন হায়দার জানান, আটক নীলা ভূমি উন্নয়ন কর সংক্রান্ত বিষয়ে মঙ্গলবার আমার অফিসে আসে। সে নিজেকে পটুয়াখালীর সহকারী জজ পরিচয় দিলে তার আচরণে আমার সন্দেহ হয়। তাকে বুধবার অফিসে আসতে বলি। এরমধ্যে নীলার বিষয়ে খোঁজ খবর নিয়ে জানতে পারি পটুয়াখালীতে ফজিলত জাহান নীলা নামে কোনো সহকারী জজ নেই। পরে বুধবার সে অফিসে আসলে তাকে আটক করা হয়।

নীলা লিখিত বক্তব্যে দোষ স্বীকার করায় তাকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

জেআইএস/জেআই

print
 

আলোচিত সংবাদ

nilsagor ad