নোয়াখালীতে ছুরিকাঘাতে কিশোর খুন
Back to Top

ঢাকা, শুক্রবার, ১০ এপ্রিল ২০২০ | ২৬ চৈত্র ১৪২৬

নোয়াখালীতে ছুরিকাঘাতে কিশোর খুন

নোয়াখালী প্রতিনিধি ১:১৩ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২০

নোয়াখালীতে ছুরিকাঘাতে কিশোর খুন

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার চৌমুহনী-মাইজদী সড়কে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে কেফায়েত উল্যা হাসান (১৮) নামের এক কিশোর নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় তার ৭ বন্ধুকে আটক করেছে পুলিশ।

সোমবার সকালে লাশ নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল থেকে উদ্ধার করে ওই হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

এর আগে রোববার রাত ৯টার দিকে ওই হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। নিহত কেফায়েত উল্যা হাসান কুমিল্লা জেলার মনোহরগঞ্জ উপজেলার বাতাবাড়ী এলাকার হেদায়েত উল্যার ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, রোববার রাত ৮টার দিকে পিঠে ছুরিকাঘাত প্রাপ্ত কিশোর হাসান চিৎকার করতে করতে দৌড়ে বেগমগঞ্জ কৃষি প্রশিক্ষণ ইনিস্টিউটের ভেতরে ঢুকে পড়ে। পরে ওই প্রতিষ্ঠানের ছাত্ররা তাকে উদ্ধার করে দ্রুত নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়। হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়ার পর হাসানকে বেডে ওঠালে সেখানে তার মৃত্যু হয়।

বেগমগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হারুন উর রশিদ চৌধুরী জানান, ধারণা করা হচ্ছে চৌমুহনী-মাইজদী সড়কের বেগমগঞ্জ কৃষি প্রশিক্ষণ ইনিস্টিউট এবং নোয়াখালী পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজের মাঝামাঝি কোনো স্থানে দুর্বৃত্তরা হাসানের পিঠের বাম অংশে ছুরি মারে। নিহত হাসানের সাত বন্ধুকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

তিনি আরো জানান, হাসান সোনাইমুড়ী বাসা ভাড়া থাকতো। তার এক বোনের বাড়ি চৌমুহনী পৌরসভার করিমপুরে। প্রায় সময় সে বোনের বাড়িতে আসত। এখানে কয়েকজন যুবকের সাথে তার বন্ধুত্ব হয়। এদের সাথে ঘোরাঘুরি ও মোবাইলে টিকটক তৈরি করতো হাসান।

জিজ্ঞাসাবাদে তার বন্ধুরা জানায়, ঘটনার দিন রোববার বিকেল থেকে মাগরিবের নামাজের পর পর্যন্ত হাসান তাদের সাথে আড্ডা দিয়েছে। পরে সে সোনাইমুড়ী চলে যাবে বলে তাদের কাছ থেকে বিদায় নিয়েছে বলে তাদের ভাষ্য।

আটককৃতদের আরো জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। ঘটনায় তার বোন বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানার পুলিশের এ কর্মকর্তা।

এইচআর

 

সমগ্রবাংলা: আরও পড়ুন

আরও